শরীক হয়ে কুরবানী করার কতিপয় মাসায়েল

প্রকাশ: ১১ আগস্ট, ২০১৯ ১১:৫০ : পূর্বাহ্ণ

 

মুফতী রহিমুল্লাহ শরীফ, টেকনাফ …

১৷ এক পশুতে শরীকের সংখ্যা

একটি ছাগল, ভেড়া বা দুম্বা দ্বারা শুধু একজনই কুরবানী দিতে পারবে । এমন একটি পশু কয়েকজন মিলে কুরবানী করলে কারোটাই সহীহ হবে না। আর উট, গরু, মহিষে সর্বোচ্চ সাত জন শরীক হতে পারবে । সাতের অধিক শরীক হলে কারো কুরবানী সহীহ হবে না । 
সহীহ মুসলিম ১৩১৮, মুয়াত্তা মালেক ১/৩১৯, কাযীখান ৩/৩৪৯, বাদায়েউস সানায়ে ৪/২০৭-২০৮

২৷সাত শরীকের কুরবানী

সাতজনে মিলে কুরবানী করলে সবার অংশ সমান হতে হবে । কারো অংশ এক সপ্তমাংশের কম হতে পারবে না । যেমন কারো আধা ভাগ, কারো দেড় ভাগ । এমন হলে কোনো শরীকের কুরবানীই সহীহ হবে না । -বাদায়েউস সানায়ে ৪/২০৭

৩৷
উট, গরু, মহিষ সাত ভাগে এবং সাতের কমে যেকোনো সংখ্যা যেমন দুই, তিন, চার, পাঁচ ও ছয় ভাগে কুরবানী করা জায়েয ।
সহীহ মুসলিম ১৩১৮, বাদায়েউস সানায়ে ৪/২০৭

৪৷
কয়েকজন শরিক মিলে এক অংশ অন্য কোন মৃত বা জীবিত ব্যক্তির নিয়ত করে নফল কুরবানী দিতে পারবে ৷
ফাতাওয়া মাহমুদিয়া ১৭/৪০৮

৫৷কোনো অংশীদারের গলদ নিয়ত হলে

যদি কেউ আল্লাহ তাআলার হুকুম পালনের উদ্দেশ্যে কুরবানী না করে শুধু গোশত খাওয়ার নিয়তে অথবা বিক্রি করার নিয়তে কুরবানী করে তাহলে তার কুরবানী সহীহ হবে না । তাকে অংশীদার বানালে শরীকদের কারো কুরবানী হবে না । তাই অত্যন্ত সতর্কতার সাথে শরীক নির্বাচন করতে হবে । -বাদায়েউস সানায়ে ৪/২০৮, কাযীখান ৩/৩৪৯

৬৷ কুরবানীর পশুতে আকীকা অংশ

কুরবানীর গরু, মহিষ ও উটে আকীকার নিয়তে শরীক হতে পারবে । এতে কুরবানী ও আকীকা দুটোই সহীহ হবে ।
তাহতাবী আলাদ্দুর ৪/১৬৬, রদ্দুল মুহতার ৬/৩৬২

৭৷ কুরবানীর পশুতে ওয়ালিমার অংশ

কুরবানীর গরু, মহিষ ও উটে ওয়ালিমার নিয়তে এক বা একাধিক অংশে শরীক হতে পারবে । কারণ ওয়ালিম সুন্নত ।
বাদায়েউস সানায়ে ৪/৩০৯, কিতাবুল মাসায়েল ২/৩১৪

৮৷
শরীকদের কারো পুরো উপার্জন যদি হারাম হয় যেমন সুদ, জুয়া তাহলে কারো কুরবানী সহীহ হবে না ।
আলবাহরুর রায়েক ৮/১৭৭, কিতাবুন নাওয়াযিল ১৪/ ৫১৪


সর্বশেষ সংবাদ