টেকনাফ নিউজ:
বিশ্বব্যাপী সংবাদ প্রবাহ... সবার আগে টেকনাফের সব সংবাদ পেতে টেকনাফ নিউজের সাথে থাকুন!

রামুতে পূন:নির্মিত বৌদ্ধ বিহার পরিদর্শনে সেনা প্রধান জেনারেল ইকবাল করিম ভুঁইয়া

Reporter Name
  • সংবাদ প্রকাশের সময় : রবিবার, ৭ জুলাই, ২০১৩
  • ১৩৫ বার এই সংবাদটি পড়া হয়েছে

dfgdfgdfনীতিশ বড়ুয়া,রামু:::::রামু সহিংসতায় ক্ষতিগ্রস্ত বৌদ্ধ বিহারের পূণনির্মিত কাজ পরিদর্শন করেছেন, বাংলাদেশ সেনাবাহিনী প্রধান জেনারেল ইকবাল করিম ভূঁইয়া। এসময় তিনি নির্মাণ কাজে দায়িত্বরত সেনা কর্মকর্তা, স্থানীয় বৌদ্ধ ভিক্ষু ও বৌদ্ধ নেতৃবৃন্দের সাথে কথা বলেন এবং পূণনির্মিত বৌদ্ধ বিহার নির্মাণ কাজের খোঁজ-খবর নেন। রোববার (৭ জুলাই) দুপুর ১ টায় রামু পৌঁছেই প্রথমে তিনি উত্তর মিঠাছড়ি বিমুক্তি বির্দশন ভাবনা কেন্দ্র ও ভুবন শান্তি একশ ফুট সিংহ শর্য্যা বুদ্ধমূর্তি পরিদর্শনে যান। পরে সেনা প্রধান রামু মৈত্রী বিহার, লাল চিং, সাদা চিং, অপর্ণা চরণ চিং ও রামু কেন্দ্রীয় সীমা বিহার পরিদর্শন করেন। বেলা সাড়ে ১২টায় বিমানে যোগে তিনি কক্সবাজারে পৌঁছান।  পরিদর্শনকালে পন্ডিত সত্যপ্রিয় মহাথের ক্ষতিগ্রস্ত বৌদ্ধ বিহারগুলো সেনাবাহিনী তত্তাবধানে সুষ্ঠু ও সুন্দরভাবে নির্মিত হওয়ায় সেনা প্রধানকে ধন্যবাদ ও কৃতজ্ঞতা জানান। বিহার অধ্যক্ষ সত্যপ্রিয় মহাথের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার আন্তরিকতায় এসব বিহার পূননির্মিত হওয়ায় তাঁর প্রতিও আন্তরিক ধন্যবাদ ও কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেন। দুপুরে রামুর পূননির্মিত বৌদ্ধবিহার সমুহে পৌঁছালে বিহারের ভিক্ষু ও পরিচালনা কমিটির নেতৃবৃন্দরা সেনা প্রধানকে স্বাগত জানান। এ সময় তিনি দায়িত্বরত কর্মকর্তাদের কাছ থেকে নির্মানাধীন বিহারের কাজের অগ্রগতির খোঁজ খবর নেন এবং নির্মাণ কাজে সন্তোষ প্রকাশ করে, বিহার আঙ্গিনাকে আরো দৃষ্টি নন্দন করে গড়ে তুলতে সেনা কর্মকর্তাদের নির্দেশ দেন। নবনির্মিত বৌদ্ধ বিহার পরিদর্শন কালে রামু কেন্দ্রীয় সীমা বিহারের অধ্যক্ষ পন্ডিত সত্যপ্রিয় মহাথের, উত্তর মিঠাছড়ি বিমুক্তি বিদর্শন ভাবনা কেন্দ্রের পরিচালক করুনাশ্রী থের ও সাধারন সম্পাদক নীতিশ বড়–য়া, আবাসিক ভিক্ষু শীলপ্রিয়, পরিচালনা কমিটির সাধারন সম্পাদক তরুন বড়–য়া, রামু মৈত্রী বিহার পরিচালনা কমিটির সভাপতি বঙ্কিম বড়–য়া, সাধারন সম্পাদক পলাশ বড়–য়ার সাথে কথা বলেন।  এ সময় সেনা প্রধানের সাথে অন্যান্যদের মধ্যে বাংলাদেশ সেনাবাহিনী ২৪ পদাতিক ডিভিশনের (চট্রগ্রাম) জিওসি মেজর জেনারেল সাব্বির আহমদ, ইঞ্জিনিয়ারিং কোরের চীফ মেজর জেনারেল হাবিবুর রহমান খাঁন, পরিচালক ব্রিগেডিয়ার সামশ্ খান, ৬৫ পদাতিক ব্রিগেডের কমান্ডার ব্রিগেডিয়ার আশরাফুল কাদের চৌধুরী, বিজিবি’র কক্সবাজার সেক্টর কমান্ডার কর্ণেল মোঃ নজরুল ইসলাম, ১৭ ইসিবি অধিনায়ক লে. কর্নেল জুলফিকার রহমান, উপ-অধিনায়ক মেজর এস এম আনোয়ার হোসেন, কক্সবাজার অতিরিক্ত পুলিশ সুপার বাবুল আকতার, রামু উপজেলা নির্বাহী অফিসার মোঃ মাসুদ হোসেন, সহকারী কমিশনার (ভূমি) মোহাম্মদ আবুল কালাম উপস্থিত ছিলেন। গতবছরের ২৯ সেপ্টেম্বর রাতে রামু সহিংসতায় ১২ বৌদ্ধ বিহার ক্ষতিগ্রস্ত হয়। এ সহিংস ঘটনায় বৌদ্ধ ধর্মাবলম্বীদের মূল্যবান বুদ্ধের পবিত্র ধাতু ও তাল পাতায় লেখা প্রাচীন পবিত্র ত্রিপিটক গ্রন্থও পুড়ে যায়। ওই ঘটনার পর মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা রামুর ক্ষতিগ্রস্ত বৌদ্ধবিহার পরিদর্শন করেন এবং সেনা বাহিনীর তত্তাবধানে বৌদ্ধ বিহার পূন নির্মাণ করার ঘোষনা দেন। আগামী আগষ্ট মাসে পূণনির্মিত বৌদ্ধবিহার আনুষ্ঠানিক উদ্বোধন করতে আবারো প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা রামু আসার কথা রয়েছে। এরই প্রেক্ষিতে আনুষ্ঠানিক উদ্বোধনের পূর্বে সেনা বাহিনী প্রধান পূননির্মিত বৌদ্ধ বিহারের নির্মাণ কাজ পরিদর্শন কালে নির্মাণ কাজে সন্তোষ প্রকাশ করেন।

 

in

সংবাদটি আপনার পরিচিতদের সাথে শেয়ার করুন...

Comments are closed.

More News Of This Category
©2011 - 2020 সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত | TekNafNews.com
Developed by WebArt IT