টেকনাফ নিউজ:
বিশ্বব্যাপী সংবাদ প্রবাহ... সবার আগে টেকনাফের সব সংবাদ পেতে টেকনাফ নিউজের সাথে থাকুন!
শিরোনাম :
দেশের ৮০ ভাগ পুরুষ স্ত্রীর নির্যাতনের শিকার’ এ বছর সর্বনিম্ন ফিতরা ৭০ টাকা, সর্বোচ্চ ২৩১০ হেফাজতের বর্তমান কমিটি ভেঙে দিতে পারে: মামলায় গ্রেফতার ৪৭০ জন মৃত্যু রহস্য : তিমি দুটি স্বামী – স্ত্রী : শোকে স্ত্রী তিমির আত্মহত্যাঃ ধারণা বিজ্ঞানীর দেশে নতুন করে দরিদ্র হয়েছে ২ কোটি ৪৫ লাখ মানুষ দাঙ্গা দমনে পুলিশের সাঁজোয়া যান সাজছে নতুনরূপে শ্রমিকের সস্তা জীবন, মায়ের আহাজারি আর ধনীর ‘উন্নয়ন’ স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর সঙ্গে হেফাজত নেতাদের বৈঠকে মূলত তিনটি বিষয় সরকারের পতন ঘটাতে জামায়াত নেতাদের সঙ্গে সখ্য ছিল মামুনুলের ধর্মীয় নেতাদের নির্বিচারে গ্রেপ্তার করা হচ্ছে: মির্জা ফখরুল

নেইমার-আলোয় উজ্জ্বল ব্রাজিল…২২ জুন রাত ১টায় মাঠে নামবে ব্রাজিল-ইতালি

Reporter Name
  • সংবাদ প্রকাশের সময় : শুক্রবার, ২১ জুন, ২০১৩
  • ১৬৫ বার এই সংবাদটি পড়া হয়েছে

কখনো তিনি আগাথা ক্রিস্টির চরিত্রের মতো রহস্যময়। কখনো ডেভিড কপারফিল্ডের জাদুর মতো রোমাঞ্চকর। মাঠের একেকটা ‘মুভ’ যেন শার্লক হোমসের গল্পগুলোর শিহরণ জাগানো ‘টুইস্ট’!
তিনি নেইমার দা সিলভা সান্তোস জুনিয়র। কিংবা শুধুই ‘নেইমার’। ব্রাজিলিয়ান ফুটবলের এখনকার বিজ্ঞাপন, আগামী দিনেরও। সাম্বার নতুন শিল্পী।
শিল্পীদেরও সমালোচক থাকে, নেইমারেরও আছে। সান্তোসের হয়ে ১০৩ ম্যাচে ৫৪ গোল। আরে, সেসব তো ব্রাজিলের যেনতেন সব ক্লাবের বিপক্ষে! ইউরোপে খেলে প্রমাণ করুক নিজেকে, দেশের হয়ে কিছু করে দেখাক—এমন কত কথাই শুনতে হয়েছে তাঁকে।
দেখালেন নেইমার। ব্রাজিলের জার্সি গায়ে জাপানের সঙ্গে কনফেডারেশনস কাপের প্রথম ম্যাচেই জানান দিয়েছিলেন তাঁকে নিয়ে ব্রাজিলিয়ানদের উচ্ছ্বাস বাড়াবাড়ি নয় মোটেও। কিন্তু পরশু রাতে মেক্সিকোর বিপক্ষে যা করলেন সেটিকে কোনো বিশেষণে বাঁধা যাবে না। বাঁ পায়ের দুর্দান্ত ভলিতে তাঁর নিজের গোল আর দুই ডিফেন্ডারকে বোকা বানিয়ে জো’কে দেওয়া সেই অসাধারণ পাস টেলিভিশনের হাইলাইটস কিংবা ইউটিউবে দেখে নিতে পারবেন সবাই। কিন্তু পুরো ম্যাচ না দেখলে আসলে বোঝা যাবে না কেন ব্রাজিলের জার্সি গায়ে এটাকেই এখন পর্যন্ত নেইমারের সেরা পারফরম্যান্স বলছেন সমালোচকেরাও।
সেই পারফরম্যান্সের ঝলকে ২-০ গোলে জিতে কনফেডারেশনস কাপের সেমিফাইনালে উঠে গেল সেলেসাওরা। কিন্তু এটাকেই মেক্সিকোর বিপক্ষে ম্যাচের একমাত্র প্রাপ্তি ভাবলে ভুল হবে। ব্রাজিল ব্রাজিলের মতো খেলতে পারছে না—এমন কথা ইদানীং শোনা যাচ্ছিল পেলে-জিকোদের মুখেও। ফোর্তালেজা স্টেডিয়ামে পরশু অনেক দিন পর ব্রাজিলকে দেখা গেল চেনা চেহারায়। যারা শুধু জিতলেই ভক্তরা খুশি হন না, জয়ে থাকতে হয় রূপ-রস-ছন্দ। ‘নেইমার ম্যাজিকের’ পাশাপাশি অনেক দিন পর দেশের জার্সিতে নিজেকে মেলে ধরেছেন দানি আলভেস। ফোর্তালেজায় আলো ছড়িয়েছেন সেন্টারব্যাক ডেভিড লুইজ, ভাঙা নাক নিয়েও খেলে গেছেন পুরোটা সময়। গোলরক্ষক হুজিও সিজারও ছিলেন দুর্দান্ত। ১০ মিনিটের মধ্যে গোল খেয়ে কিছুটা খেই হারিয়ে ফেলা মেক্সিকোও নিজেদের গুছিয়ে নিয়েছে পরে। কিন্তু গোল শোধের চেষ্টা জিওভান্নি দস সান্তোসই যেন একাকী করে গেছেন পুরোটা সময়। সব মিলিয়ে পরাজয়টা কনফেডারেশনস কাপ থেকে মেক্সিকানদের বিদায় নিশ্চিত করে দিল। কাল বেলো হরিজন্তে স্টেডিয়ামে জাপানের সঙ্গে ম্যাচটা এখন শুধুই নিয়ম রক্ষার।
অনেক দিন পর ভক্তদের সব চাওয়া পূরণ করা এমন একটা ম্যাচ উপহার দেওয়ার কৃতিত্ব নেইমারকেই দিলেন কোচ লুই ফেলিপে স্কলারি, ‘ও দারুণ খেলেছে এবং পুরো ম্যাচেই মেক্সিকোকে ভুগিয়েছে। মেক্সিকোর রক্ষণ ভাঙার জন্য যা করা দরকার ছিল নেইমার ঠিক সেটাই করেছে।’ যার জন্য এই উচ্ছ্বসিত প্রশংসা, ম্যাচসেরা সেই নেইমারও দিলেন পরের ম্যাচগুলোতেই এই ছন্দ ধরে রাখার প্রতিশ্রুতি, ‘আমি খুশি যে ভালো খেলতে পেরেছি, তবে তার চেয়েও গুরুত্বপূর্ণ হচ্ছে দল ভালো করেছে। আমরা দিন দিন উন্নতি করছি এবং পরের ম্যাচে এটা আমাদের আরও আত্মবিশ্বাস এনে দেবে।’ তথ্যসূত্র: এএফপি।

সংবাদটি আপনার পরিচিতদের সাথে শেয়ার করুন...

Comments are closed.

More News Of This Category
©2011 - 2020 সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত | TekNafNews.com
Developed by WebArt IT