টেকনাফ নিউজ:
বিশ্বব্যাপী সংবাদ প্রবাহ... সবার আগে টেকনাফের সব সংবাদ পেতে টেকনাফ নিউজের সাথে থাকুন!
শিরোনাম :
রোহিঙ্গারা কন্যাশিশুদের বোঝা মনে করে অধিকতর বন্যার ঝূঁকিপূর্ণ জেলা হচ্ছে কক্সবাজার টেকনাফে মুজিববর্ষ উপলক্ষ্যে ৩০ পরিবারকে প্রধানমন্ত্রীর উপহার জমি ও ঘর হস্তান্তর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান-মেম্বারদের দায়িত্ব নিয়ে ডিসিদের চিঠি আগামীকাল ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচন (তালিকা) বাংলাদেশ মাধ্যমিক শিক্ষা প্রতিষ্ঠান প্রধান টেকনাফ উপজেলা কমিটি গঠিত: সভাপতি, সালাম: সা: সম্পাদক: ইসমাইল আজ বিশ্ব শরণার্থী দিবস মিয়ানমারে ফেরা নিয়ে উদ্বেগ-উৎকণ্ঠায় রোহিঙ্গারা ব্যাটারিচালিত রিকশা-ভ্যান বন্ধের সিদ্ধান্ত: স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী শেখ হাসিনা যতদিন আছে, ততদিন ক্ষমতায় আছি: হানিফ শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান বন্ধ রাখা সবচেয়ে বড় ভুল : ডা. জাফরুল্লাহ

লেদায় মুখোশধারীদের গুলিতে ১৩ রোহিঙ্গা গুলিবিদ্ধ

Reporter Name
  • সংবাদ প্রকাশের সময় : মঙ্গলবার, ২২ সেপ্টেম্বর, ২০১৫
  • ১৩৪ বার এই সংবাদটি পড়া হয়েছে

হাফেজ মুহাম্মদ কাশেম, টেকনাফ = টেকনাফের লেদায় মুখোশধারী ডাকাতদের গুলিতে ১৩ জন রোহিঙ্গা আহত হয়েছেন। টেকনাফ মডেল থানার পুলিশ দল ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন। ২২ সেপ্টেম্বর রাত ২টার দিকে লেদা রোহিঙ্গা ক্যাম্পে এঘটনা ঘটে। ক্যাম্পের চেয়ারম্যান হাফেজ মোঃ আয়ুব জানান- মুখোশ পরিহিত ১৪/১৫ জনের অস্ত্রধারী ডাকাত দল রোহিঙ্গা ক্যাম্পের ‘ই’ ব্লকের ১৪৫ নম্বর কক্ষের বাসিন্দা কবির আহমদের পুত্র আবদুর রহমান (৪৫) এবং ‘ই’ ব্লকের ১৪৭ নম্বর কক্ষের বাসিন্দা আবদুল কাদেরের পুত্র হাফেজ ছৈয়দ হোসেনের বাসায় হানা দিয়ে লুটপাট চালায়। তাদের শোর-চিৎকারে পাশ্ববর্তী রোহিঙ্গারা এগিয়ে আসলে ডাকাতরা ১০/১২ রাউন্ড গুলি বর্ষন করে পাহাড়ের দিকে পালিয়ে যায়। ডাকাতদের গুলিতে ১৩ জন রোহিঙ্গা আহত হয়। আহতরা হচ্ছে- ‘ডি’ ব্লকের ১৬৩ নম্বর কক্ষের বাসিন্দা ইউনুসের পুত্র মোঃ আয়ুব (২৬), ‘ডি’ ব্লকের ১৬৮ নম্বর কক্ষের বাসিন্দা মোঃ ইউসুফের পুত্র মো কাসেম (৪০), ‘ই’ ব্লকের ১৭৮ নম্বর কক্ষের বাসিন্দা মিয়া হোসেনের পুত্র শব্বির (৩০), ‘ডি’ ব্লকের ১২০ নম্বর কক্ষের বাসিন্দা আবদুল্লাহর পুত্র মোঃ হোছাইন (১৭), ‘সি’ ব্লকের ২৯৭ নম্বর কক্ষের বাসিন্দা ফয়েজুর রহমানের পুত্র আজিজুর রহমান (৪৫), ‘ডি’ ব্লকের ৮৭ নম্বর কক্ষের বাসিন্দা মনির উল্লাহর পুত্র জামাল (৩০), ‘ডি’ ব্লকের ৬৩ নম্বর কক্ষের বাসিন্দা ছৈয়দুর রহমানের পুত্র বশির আহমদ (৩৫), ‘ই’ ব্লকের ২৪০ নম্বর কক্ষের বাসিন্দা শফিউল্লাহর পুত্র মোঃ শফি (১৫), ‘ই’ ব্লকের ২৪৫ নম্বর কক্ষের বাসিন্দা মোঃ কাসেমের পুত্র মুহিববুল্লাহ (২৫), ‘ই’ ব্লকের ২৩৬ নম্বর কক্ষের বাসিন্দা জলিল আহমদের পুত্র নুর হাকিম (৩৮), ‘বি’ ব্লকের ৩৪০ নম্বর কক্ষের বাসিন্দা ছৈয়দ নুরের পুত্র বদিউজ্জামান (৩০), ‘এ’ ব্লকের ২৭ নম্বর কক্ষের বাসিন্দা ইমাম হোসেনের পুত্র মোঃ সালাম (২৬), ‘বি’ ব্লকের ৩১১ নম্বর কক্ষের বাসিন্দা কালা মিয়ার পুত্র শামসুল আলম (৩৫)। তিনি আরও জানান- খবর পেয়ে টেকনাফ মডেল থানার সাব-ইন্সপেক্টর খাইরুল দ্রুত ঘটনাস্থলে উপস্থিত হয়ে আহতদের উদ্ধার করে টেকনাফ হাসপাতালে নিয়ে যান। কিন্ত গুলিবিদ্ধদের প্রত্যেকের শরীরে গুলি থাকায় গুলি বের করার জন্য সকলকে কক্সবাজার জেলা সদর হাসপাতালে রেফার করা হলেও টাকার অভাবে কেউ কক্সবাজার জেলা সদর হাসপাতালে যেতে পারেনি। সকলেই রোহিঙ্গা ক্যাম্পের স্ব-স্ব বাসায় ফিরে এসেছে। এদিকে রোহিঙ্গা ক্যাম্পে ডাকাতির বিষয় নিয়ে ২২ সেপ্টেম্বর দুপুরে টেকনাফ উপজেলা নির্বাহী অফিসার শাহ মোজাহিদ উদ্দিনের কক্ষে অনুষ্টিত উপজেলা আইন শৃংখলা কমিটির সভায় গুরুত্ব সহকারে আলোচনা হয়েছে। ##
স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স জরুরি বিভাগের চিকিৎসক শহিদুল ইসলাম বলেন, ডাকাতের হামলায় ১৪জন আহত হয়েছেন। এরমধ্যে ১১জনের শরীরের বিভিন্ন স্থানে গুলির চিহ্ন রয়েছে। তারমধ্যে আবদুর রহমান, নজির আহমদ ও মদিনা খাতুনকে প্রাথমিক চিকিৎসা দিয়ে ছেড়ে দেওয়া হলেও এগারজনের অবস্থা আশঙ্কাজনক হওয়ায় তাদের কক্সবাজার হাসপাতালে পাঠানো হয়।
ওসি আরো বলেন, পুলিশ ঘটনাস্থলে গেলে ডাকাতির চেষ্টায় ব্যর্থ হয়ে পালিয়ে যাওয়ায় কাউকে আটক করা সম্ভব হয়নি। ডাকাতদের তথ্য সংগ্রহ করে তাদের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

সংবাদটি আপনার পরিচিতদের সাথে শেয়ার করুন...

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.

More News Of This Category
©2011 - 2020 সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত | TekNafNews.com
Developed by WebArt IT