টেকনাফ নিউজ:
বিশ্বব্যাপী সংবাদ প্রবাহ... সবার আগে টেকনাফের সব সংবাদ পেতে টেকনাফ নিউজের সাথে থাকুন!
শিরোনাম :
মামুনুল হকের ব্যাপারে কোনো সিদ্ধান্ত নেয়নি হেফাজত দেশবাসীর কাছে দোয়া চেয়েছেন খালেদা জিয়া করোনার উপসর্গ দেখা দিলে ‘আইসোলেশনে’ থাকবেন যেভাবে ১২-১৩ এপ্রিল দূরপাল্লার বাস চলবে না : জনপ্রশাসন প্রতিমন্ত্রী টেকনাফে সরকারি নির্দেশনা অমান্য করে বিকাল ৫.০০ টার পর একাধিক দোকান ও শপিংমল খোলা রাখায় জরিমানা চেয়ারম্যান -মেম্বারদের চলতি মেয়াদ আরও তিন মাস বাড়ছে স্বাস্থ্যসেবা ব্যবস্থাপনায় ৬৪ জেলার দায়িত্বে ৬৪ সচিব মেয়ের বিয়ের যৌতুকের টাকা জোগাড় করতে না পেরে বাবার আত্মহত্যা মিয়ানমারে গুলিতে আরও ১০ জন নিহত যুক্তরাষ্ট্রে বিশেষ স্বীকৃতি পাচ্ছেন বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা

টেকনাফে কাঁচা কলাতে বিষাক্ত পানি মিশিয়ে পাঁকাচ্ছে: খাওয়াচ্ছে রোজাদারদের

Reporter Name
  • সংবাদ প্রকাশের সময় : শুক্রবার, ১২ জুলাই, ২০১৩
  • ১৩৬ বার এই সংবাদটি পড়া হয়েছে

teknaf news & pic 12-7-13 copyনুর হাকিম আনোয়ার:::টেকনাফে রোজাদারদের খাওয়ানো হচ্ছে বিষাক্ত পানি মিশ্রিত কলা। এসব কলা সাধারণ মানুষ কলাকে পুষ্টি কর ফল বলে গন্য করলেও মানুষ কলার সঙ্গে খাচ্ছে বিষ। টেকনাফ উপজেলার বিভিন্ন কলার আড়তে এ বিষ মেশানো হচ্ছে বলে অভিযোগ উঠেছে। ফলে বিষ মেশানো কলা যারা খাচ্ছে তাদের জটিল রোগ হবে বলে আশংকা করছে সচেতন মহল । টেকনাফ পৌরসভার বিভিন্ন এলাকা ঘুরে দেখা যায়, অলিয়াবাদ সী-বীচ রোডে রাস্তার দু-পাশে থাকা কলা ব্যবসায়ী সুলতান আহাম্মদ সওদাগর, ফরিদ সওদাগর, বশির সওদাগর, অহিউল্লাহ সওদাগর, নুর বশর, ফয়েজ উল্লাহ সওদাগরের দোকান সহ বিভিন্ন ইউনিয়নের কলার দোকানে সরজমিনে পরির্দশন গিয়ে দেখা যায়- কলাতে বিষ মিশানোর অসংখ্য দৃশ্য। অসাধু এক শ্রেনীর কলা ব্যবসায়ী অতিরিক্ত মুনাফার জন্য পবিত্র রমজান মাসে কলাতে বিষ মিশিয়ে এ ব্যবসা করে যাচ্ছে । ব্যবসায়ীরা কলার আড়তের সামনে শতাধিক  কলা রাখলেও পর্দার আড়ালে থাকে বাকী সমস্ত কলা ও বিষাক্ত পানি মেশানো ড্রাম। দেশের বিভিন্ন প্রত্যন্ত অঞল থেকে আনা এসব কাঁচাকলা তড়িৎ বিক্রি করতে বিষাক্ত এ পানি মিশিয়ে কলা পাকানো হয় । যে সমস্ত ক্রেতাদের জরুরী ভিত্তিতে পাঁকা কলার প্রয়োজন হয় তাদেরকে বিষাক্ত এ পানি মেশানো ড্রাম ভর্তি পানিতে ডুবিয়ে কলা বিক্রি করা হয়। বিষাক্ত এ পানিতে কলা ভিজিয়ে নিলে অল্প সময়ে লাল হয়ে যায় কলার রং। এতে কম সময়ের মধ্যে সাধারণ ক্রেতাদের এ কলা বিক্রি করা যায়। প্রতিদিন কলা ব্যবসায়ীরা এভাবে হাজার হাজার কলাতে বিষাক্ত পানি মিশিয়ে কলা বিক্রি করে যাচ্ছে। আর এসব কলা খাচ্ছে মানুষ। অলিয়াবাদের কয়েকজন পুরাতন কলা ব্যবসায়ীর জানায়- কলাতে বিষাক্ত পানি মেশানো হয় তা আগে জানলে কোনদিন ও কলা খেতাম না। এ সব বিষাক্ত পানি প্রকাশ্যে প্রতিদিন  দিনের বেলায় মেশানো হলে ও সংশ্লিষ্টদের কোন খবরদারি নেই। অভিজ্ঞ মহল মনে করছেন বিষাক্ত পানি মিশানো কলা পেটে গেলে লিভার ক্যান্সারসহ,কিডনী ও পাকস্থলীর সমস্যা দেখা দিতে পারে। বিশেষ করে শিশু ও গর্ভবতী মায়েদের জন্য এসব কলা মারাত্বক তিকর বলে মনে করেন। সংশ্লিষ্ট সূত্র জানায়- বিএসটিআই হচ্ছে খাদ্যের মান পরীা করার একমাত্র সরকারি প্রতিষ্ঠান । অর্ডিন্যন্স ১৯৮৫ অনুযায়ী বিএসটিআই বাজারে সব পন্য  দেখা শুনা করবে। কিন্তু সীমান্ত শহর টেকনাফে কোন ধরণের তদারকি না থাকার ফলে ইচ্ছামতো বিক্রি হয় নানান পন্য। তাই কাচাঁ কলাকে পাঁকা করতে বিশেষ কারবাইড ব্যবহার করতেও কোন ভয়ভীতি নেই অসাধু এসব ব্যবসায়ীদের। দীর্ঘদিন ধরে টেকনাফে কাঁচাকলাকে বিষাক্ত পানি মিশিয়ে পাকালেও কারো কোন খবর নেই । তাই টেকনাফে অসংখ্য মানুষ মন্তব্য করে বলে টেকনাফে কি এসব দেখার কেউ নেই ?

সংবাদটি আপনার পরিচিতদের সাথে শেয়ার করুন...

Comments are closed.

More News Of This Category
©2011 - 2020 সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত | TekNafNews.com
Developed by WebArt IT