টেকনাফ নিউজ:
বিশ্বব্যাপী সংবাদ প্রবাহ... সবার আগে টেকনাফের সব সংবাদ পেতে টেকনাফ নিউজের সাথে থাকুন!

টেকনাফে আজ সাবেক ও বর্তমান এমপির মান রক্ষার লড়াই

Reporter Name
  • সংবাদ প্রকাশের সময় : সোমবার, ২৮ জানুয়ারি, ২০১৩
  • ১৪৮ বার এই সংবাদটি পড়া হয়েছে

মমতাজুল ইসলাম মনু টেকনাফ (কক্সবাজার)
আজ টেকনাফ আ’লীগের সম্মেলন ও কাউন্সিল। উপমহাদেশের পুরনো রাজনৈতিক ও ক্ষমতাসীন দল হওয়ায় পুরো জেলাবাসীর চোখ এখন টেকনাফ উপজেলা আ’লীগের সম্মেলনের দিকে। বিশেষ করে সাবেক এমপি ও জেলা আ’লীগের সিনিয়র সহ-সভাপতি অধ্যাপক মোহাম্মদ আলী এবং বর্তমান এমপি আবদুর রহমান বদি প্রতিদ্বন্দিতায় অবতীর্ণ হওয়ায় আগ্রহটা বেড়ে যায় টেকনাফসহ জেলাবাসীর। এতদিন প্যানেলবিহীন অবস্থায় মাঠ চষে বেড়িয়েছেন দলের উপজেলা যুগ্ন সম্পাদক ও উপজেলা ভাইস-চেয়ারম্যান সাবেক কেন্দ্রীয় ছাত্রনেতা ইউনুছ বাঙ্গালী। অপরজন দলের উপজেলা কমিটির সদস্য , উপজেলা ছাত্রলীগের সাবেক সভাপতি ও বর্তমান পৌর কাউন্সিলর নুরুল বশর। তারা উভয়ে সম্পাদক পদে প্রতিদ্বন্দিতা করবেন বলে সংশ্লিস্টদের জানিয়েও দিয়েছেন। বেশ ক’দিন কাউন্সিলরদের দ্বারে দ্বারে গিয়ে ধর্নাও দিয়েছেন নিয়মিত। অন্যদিকে বর্তমান উপজেলা সম্পাদক ও উপজেলা চেয়ারম্যান সফিক মিয়া প্রতিদ্বন্দিতার বিষয়ে নিরব থাকলেও বর্তমান সভাপতি জাফর আলম চৌধুরী সভাপতি পদে অন্য কোন নেতার তৎপরতা না থাকায়  বিনা প্রতিদ্বন্দিতায় ২য় বারের মত সভাপতি হচ্ছেন ভেবে নিশ্চিন্তে ঘুমিয়েছিলেন।  শুক্রবার ও শনিবার রাতে কাউন্সিলে মুরব্বির ভুমিকায় থাকা সাবেক সাংসদ জেলা আ’লীগের সিনিয়র সহ-সভাপতি অধ্যাপক মোহাম্মদ আলী ও বর্তমান সাংসদ আবদুর রহমান বদি নিজেই ১ম জন সভাপতি ও ২য় জন সেক্রেটারী পদে প্রার্থিতা ঘোষণা করলে এতদিনের হিসাব-নিকাশ জল্পনা-কল্পনা সব থেমে যায় নিমিষেই। বিভেদ-বিভক্তির ক্রান্তিকালে থাকা টেকনাফ উপজেলা আ’লীগের সম্মেলন দীর্ঘ ১০ বছর পর অনুষ্ঠানের খবর জেনে দেশের গুরুত্বপূর্ণ পর্যটন শহর টেকনাফ উপজেলা আ’লীগের কর্মীদের মাঝে আনন্দের বন্যা বইছে। সম্মেলনকে ঘিরে তৃণমূল নেতা-কর্মীদের মাঝে সৃষ্টি হয়েছে প্রাণচাঞ্চল্য। সর্বত্র যেন বিরাজ করছে নতুন কোন উৎসবের আমেজ। এ খবরে দলের সাধারণ সমর্থকদের মাঝেও বয়ে চলেছে খুশীর বন্যা। সেই সাথে বর্ণাঢ্য আয়োজনের মধ্য দিয়ে আগামী ২৯ জানুয়ারী অনুষ্ঠেয় টেকনাফ উপজেলা আওয়ামীলীগের কাউন্সিল অধিবেশনকে সফল করতে সব ধরনের প্রস্তুতিও নেয়া হচ্ছে। চলছে ব্যাপক আয়োজন। ঝিমিয়ে থাকা উপজেলা আ’লীগের কর্মকান্ডে চাঙ্গাভাব ফিরে  আসতে শুরু করেছে। সাথে উপজেলা কমিটির নেতৃত্বে শক্তিধর বর্তমান এমপি ও আরেক সাবেক এমপি দু’জনই হেভিওয়েট প্রার্থী হওয়ায় তাদের জয় পরাজয় মান সম্মান ও অস্তিত্ব নিয়ে নানা জল্পনা কল্পনা শুরু হয়েছে। অপেক্ষাকৃত  অদক্ষ নেতাদের ব্যর্থতা কাটিয়ে উঠতেই এবার এমন নেতার প্রয়োজন বলে মনে অনেকে।  সাংগঠনিক দক্ষতার অভাবে দলের কর্মকান্ড স্থবির হয়ে পড়ায় সাবেক ও বর্তমান এমপির সিদ্ধন্তকে যুগোপযোগী মনে করছেন রাজনৈতিক সচেতন মহল। উখিয়া-টেকনাফের সাবেক এমপি জেলার বর্ষিয়াণ আওয়ামীলীগ নেতা অধ্যাপক মোহাম্মদ আলী উপজেলা আ’লীগের দুঃসময়ের কান্ডারী হওয়ার ইচ্ছা প্রকাশ করায় পুরো আওয়ামীলীগ পরিবারে অন্য রকম প্রাণচাঞ্চলের সৃষ্টি হয়েছে। এমন চিন্তা মাথায় রেখেই সিনিয়র ও তৃণমূলের নেতারা প্রবীণ অথচ নবীণ মানসিকতা সম্পন্ন নেতৃত্বের পক্ষে জোরেশোরে প্রচারণা শুরু করে মাঠ চষে বেড়াচ্ছেন। কাউন্সিলররা অদক্ষ নেতৃত্বের বদলে সাবেক ছাত্র নেতাদের নেতৃত্ব দিয়ে টেকনাফ আ’লীগকে ঢেলে সাজাতে চায়। দীর্ঘ ১০ বছর পর টেকনাফ উপজেলা আওয়ামীলীগের নেতৃত্বে কারা আসছেন অধ্যাপক মোহাম্মদ আলী-নুরুল বশর প্যানেল নাকি জাফর চৌধুরী-বদি প্যালেন তা জানার জন্য অপেক্ষা করতে হবে ২৯ জানুয়ারী পর্যন্ত। ==

মমতাজুল ইসলাম মনু
টেকনাফ-কক্সবাজার
মোবাইল নং-০১৮৪৩৭২৫৩৪৩

সংবাদটি আপনার পরিচিতদের সাথে শেয়ার করুন...

Comments are closed.

More News Of This Category
©2011 - 2020 সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত | TekNafNews.com
Developed by WebArt IT