টেকনাফ নিউজ:
বিশ্বব্যাপী সংবাদ প্রবাহ... সবার আগে টেকনাফের সব সংবাদ পেতে টেকনাফ নিউজের সাথে থাকুন!

খালেদা-এরশাদ দেখা হয়নি, ফোনে কথা নিয়ে গুঞ্জন

Reporter Name
  • সংবাদ প্রকাশের সময় : শুক্রবার, ২১ জুন, ২০১৩
  • ১৬১ বার এই সংবাদটি পড়া হয়েছে

সিঙ্গাপুরে বিরোধীদলীয় নেতা বেগম খালেদা জিয়া ও সাবেক প্রেসিডেন্ট জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যান এইচ এম এরশাদের দেখা হয়নি কঠোর নিরাপত্তা কর্ডনে থাকার কারণে। তারা টেলিফোনে কুশল বিনিময় করেছেন বলে বিভিন্ন ওয়েবসাইটে সংবাদ বেরিয়েছে। বেগম খালেদা জিয়ার সঙ্গে দেখা হয়েছে জাতীয় পার্টির প্রেসিডিয়াম সদস্য ও এরশাদের স্ত্রী রওশন এরশাদের। তবে মাউন্ট এলিজাবেথ হাসপাতালে প্রবেশের মুখে তাদের মধ্যে দেখা হলেও কথা হয়নি।

রওশন এরশাদকে চিকিত্সার জন্য সাবেক রাষ্ট্রপতি এরশাদ আগেই সিঙ্গাপুর নিয়ে গিয়েছিলেন। মাউন্ট এলিজাবেথ হাসপাতালে তার চিকিত্সা চলছিল। তিনি নিজেরও চেকআপ করান সেখানে। তবে এ ব্যাপারে সাবেক রাষ্ট্রপতি হুসাইন মুহাম্মদ এরশাদ জানান, বেগম জিয়া সিঙ্গাপুরে যাবেন আমি সেটিই জানতাম না, পরে শুনেছি তার সিঙ্গাপুরে যাওয়ার কথা। তার সঙ্গে দেখাও হয়নি, কথাও হয়নি। এমনকি আমার স্ত্রীর সঙ্গে তার দেখা হয়নি। একই কথা বলেন, জাতীয় পার্টির প্রেসিডিয়াম সদস্য জিয়াউদ্দিন আহমেদ বাবলু। তিনি বলেন, চেকআপের জন্য হাসপাতালে তাদের অ্যাপোয়েন্টমেন্ট আগেই নেওয়া ছিল। খালেদা জিয়ার সঙ্গে স্যারের দেখা বা কথা কোনোটাই হয়নি। এমন কি তার স্ত্রীর সঙ্গেও নয়।ˆএদিকে বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়া চিকিত্সার জন্য ১৬ জুন রাতে সিঙ্গাপুর যান। ২৪ জুনের দিকে তার ফেরার কথা। ১৮ জুন রাতে এরশাদ তার স্ত্রীকে নিয়ে দেশে ফিরে আসেন। এদিকে গোটা রাজনৈতিক অঙ্গনে জোর আলোচনায় আসে সিঙ্গাপুরে খালেদা জিয়া ও জাপা চেয়ারম্যান এরশাদের বৈঠক ও রাজনৈতিক সমঝোতা হয়ে যাচ্ছে। কাগজপত্রে এরশাদ ক্ষমতাসীন মহাজোটের প্রধান শরিক হলেও অনানুষ্ঠানিকভাবে তার দলের তত্পরতা ও নিজের এবং নেতাদের বক্তৃতা-বিবৃতিতে মনে হয় তারা সরকার থেকে অনেক দূরে রয়েছেন। এরশাদের ভাই জি এম কাদের জোট সরকারের মন্ত্রী থাকলেও সরকারের সমালোচনা করতে ছারর মন্ত্রী থাকলেও সরকারের সমালোচনা করতে ছাড়েন না। তৃণমূল থেকে জাতীয় পার্টির প্রেসিডিয়াম সদস্য পর্যন্ত সবাই এরশাদের ওপর চাপ সৃষ্টি করে আসছেন মহাজোট ত্যাগের। এরশাদও বলে আসছেন সময় মতোই তিনি মহাজোট ছাড়বেন। সরকারের সমালোচনায় সবচেয়ে সোচ্চার জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যান এরশাদ। তাই আগামী জাতীয় নির্বাচন সামনে রেখে বিরোধীদলীয় নেতা বেগম খালেদা জিয়ার সঙ্গে তার পার্টির রাজনৈতিক ঐক্য গড়ে ওঠার সম্ভাবনাও দেখছেন অনেকেই। এমনকি বিএনপি নেতাদের কেউ কেউ এরশাদ ও তার জাতীয় পার্টির নেতাদের সঙ্গে রাজনৈতিক সমঝোতা করার লক্ষ্যে যোগাযোগ রক্ষা করে আসছিলেন।
তাই সিঙ্গাপুরে এরশাদের অবস্থান ও বেগম খালেদা জিয়ার সফর ঘিরে গণমাধ্যমসহ রাজনীতির অন্দরে-বাইরে সর্বত্র আলোচনার ঝড় ওঠে। সরকারসহ নানা মহল খোঁজ নিতে থাকেন আসলেই সেখানে দুজনের বৈঠক ও রাজনৈতিক সমঝোতা গড়ে উঠছে কিনা? এরশাদ ১৮ জুন ফিরে এলেও সিঙ্গাপুরে কী ঘটেছে তা নিয়ে প্রকাশ্যে বা দলীয় নেতাদের সঙ্গে মুখ খোলেননি। সাবেক প্রেসিডেন্ট হুসাইন মুহাম্মদ এরশাদ আরও বলেন, আমি রাজনীতি করি। কোনো কিছু ঘটলে তা সবাই জানতে পারবে। সুতরাং অহেতুক গুঞ্জন বা গুজবে কান ˆ`

সংবাদটি আপনার পরিচিতদের সাথে শেয়ার করুন...

Comments are closed.

More News Of This Category
©2011 - 2020 সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত | TekNafNews.com
Developed by WebArt IT