টেকনাফ নিউজ:
বিশ্বব্যাপী সংবাদ প্রবাহ... সবার আগে টেকনাফের সব সংবাদ পেতে টেকনাফ নিউজের সাথে থাকুন!

কক্সবাজারে জামায়াত-শিবিরের ঝটিকা মিছিল!

Reporter Name
  • সংবাদ প্রকাশের সময় : শুক্রবার, ৭ ডিসেম্বর, ২০১২
  • ১৩৮ বার এই সংবাদটি পড়া হয়েছে

শাহনেওয়াজ জিল্লু, কক্সবাজার:…. দিনাজপুরে গুলি করে শিবির কর্মীকে হত্যা ও দেশব্যাপী হরতালে পুলিশ এবং আওয়ামী সন্ত্রাসীদের হামলা, গ্রেফতার ও মিথ্যা মামলা প্রদানের প্রৃতিবাদে কেন্দ্রীয় সংগঠনের নির্দেশে কক্সবাজার শহর জামায়াতের এক ঝটিকা মিছিল প্রধান প্রধান সড়ক প্রদক্ষিণ করে। মিছিলোত্তর এক সমাবেশে বাংলাদেশ জামায়াতে ইসলামীর কেন্দ্রীয় কর্মপরিষদ সদস্য ও কক্সবাজার জেলা আমীর মুহাম্মদ শাহজাহান বলেন, মাননীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীসহ সরকারের একাধিক উচ্চ পদস্থ ব্যক্তির পক্ষ থেকে ছাত্রলীগ-যুবলীগকে আইন হাতে তুলে নেওয়ার উস্কানি প্রদান গণতান্ত্রিক সংস্কৃতিকেই শুধু বিপন্ন করবে না, অধিকন্তু দেশের শান্তি-শৃংখলাও হুমকির সম্মুখীন হবে। একটি নিবন্ধিত ও বাংলাদেশের সকল পার্লামেন্টে প্রতিনিধিত্বকারী রাজনৈতিক দল জামায়াত এবং ছাত্রশিবিরের উপর সরকার যেভাবে দমন-পীড়ন চালাচ্ছে তা সভ্য সমাজে কল্পনা করা যায় না। হরতালে আওয়ামী সন্ত্রাসীরা মিরপুরে আবার ২৮শে অক্টোবরের মত নির্মমভাবে শিবির কর্মীদেরকে পুলিশের সামনে প্রহার করেছে। দিনাজপুরে পুলিশ গুলি করে শিবির কর্মীকে হত্যা করেছে। তিনি আরো বলেন, আ’লীগ এবং গণতন্ত্র এক সাথে চলতে পারে না। তাদের টার্গেট শুধু জামায়াত নয়। তারা চায় বিরুধীদল শূন্য বাকশালী বাংলাদেশ। এ লক্ষ্যে মহাজোট সরকার জামায়াতের পরীক্ষিত নেতৃবৃন্দকেই প্রধান বাধা মনে করে তাদের বিরুদ্ধে তথাকথিত মানবতাবিরোধী বিচারের নামে প্রহসন করছে। সরকারের মন্ত্রীরা তাদের বক্তব্যে বিচারের রায়, দিন-তারিখ বলে দিচ্ছে। কিন্তু বাংলাদেশের তৌহিদী জনতা বিচারের নামে এই অবিচারকে কখনো মেনে নিবে না। অবিলম্বে সাজানো নাটক বন্ধ করে আমীরে জামায়াত ও সাবেক সফল মন্ত্রী মাওলানা নিজামী, সাবেক আমীরে জামায়াত, ডাকসু জিএস ও ভাষা সৈনিক প্রফেসর গোলাম আজম, আন্তর্জাতিক খ্যাতি সম্পন্ন মুফাস্সিরে কুরআন আলামা সাঈদী, সেক্রেটারী জেনারেল ও সাবেক মন্ত্রী মুজাহিদ সহ গ্রেফতাকৃত সকল নেতাকর্মীদেরকে মুক্তি দিতে হবে। তিনি আরো বলেন, দ্রব্য মূল্যের উর্ধ্বগতি, বেকারত্ব, সন্ত্রাস, খুন-ঘুম, এবং চুরি ডাকাতিতে দেশ ছেয়ে গেছে। সরকার এবং আইনশৃংখলা রক্ষাকারী বাহিনীর সেদিকে কোন নজর নেই। ছাত্রলীগের সন্ত্রাস, টেন্ডার ও অস্ত্রবাজির কারণে শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে শিক্ষার কোন পরিবেশ নেই। সরকারের সর্ব পর্যায়ের কর্তা ব্যক্তিরা দূর্নীতি-স্বজনপ্রীতির মাধ্যমে নিজেদের আখের গোছাতে ব্যস্ত হয়ে পড়েছে। তিনি অবিলম্বে নির্দলীয় তত্ত্বাবধায়ক সরকারের অধীনে নির্বাচন দিয়ে দেশকে রক্ষা করার জন্য সরকারের প্রতি উদাত্ত আহব্ন জানান। মুহাম্মদ শাহজাহান আরো বলেন, কক্সবাজার একটি পর্যটন নগরী হিসেবে এখানকার শান্তি শৃংখলা রক্ষা করা সকলের দায়িত্ব। এজন্য জামায়াত ও বিরোধী দলের সভা সমাবেশে বাধা প্রদান না করার জন্য প্রশাসনের প্রতি তিনি আহবান জানান। তিনি দৃঢ়তার সাথে বলেন, পুলিশের পক্ষ থেকে জামায়াত ও বিরোধী দলের সভা সমাবেশে বাধা না দিলে কক্সবাজারের রাজনৈতিক পরিস্থিতি কখনো ঘোলাটে হবে না। সমাবেশে সভাপতিত্ব করেন কক্সবাজার শহর জামায়াতের আমীর অধ্যাপক আবু তাহের চৌং। এতে অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন জেলা জামায়াতের কর্মপরিষদ সদস্য মাও. মুহাম্মদ আলমগীর, শহর সেক্রেটারী সাইদুল আলম, সদর সেক্রেটারী মোস্তাক আহমদ, শহর জামায়াতের এসি. সেক্রেটারী জাহেদুল ইসলাম, সাংগঠনিক সম্পাদক আব্দুলাহ আল ফারুখ, শহর ছাত্র শিবির সভাপতি আবু নঈম মুহাম্মদ হারুন, জেলা ছাত্রশিবির সেক্রেটারী দিদারুল ইসলাম, শহর জামায়াতের কর্মপরিষদ মুহাম্মদ মহসিন, পৌরসভা ছাত্রশিবির সভাপতি জাহেদুল ইসলাম নোমান, প্রমুখ।

 

শাহনেওয়াজ জিল্লু

কক্সবাজার-০৫-১২-১২ইং

 

সংবাদটি আপনার পরিচিতদের সাথে শেয়ার করুন...

Comments are closed.

More News Of This Category
©2011 - 2020 সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত | TekNafNews.com
Developed by WebArt IT