হটলাইন

01787-652629

E-mail: teknafnews@gmail.com

সর্বশেষ সংবাদ

আর্ন্তজাতিকপ্রচ্ছদমজার বিষয়

২৫ বছরের মধ্যে বিয়ে না করলে শাস্তি!

ডেনমার্কে ২৫ বছরেও অবিবাহিত কিম্বা কোনরূপ প্রেমের সম্পর্কে জড়ান নি, এমন যুবক-যুবতীদের তাদের ২৫তম জন্মদিনে পড়তে হয় যারপরনাই অস্বস্তিতে। কারণ ২৫তম জন্মদিনে তাদের সারা গায়ে ছিটিয়ে দেয়া হয় দারচিনির গুঁড়া। কেউ কেউ আবার পানিও ছিটিয়ে দেন যেন দারচিনির গুঁড়া গায়ে একদম মেখে যায়।

ভাবছেন, এটা করতে যার জন্মদিন তার নিশ্চয়ই অনুমতি নিয়ে নেয়া হয়। মজার ব্যাপার, এটা করবার সময় কেউ কোনরকম অনুমতির তোয়াক্কাই করেন না। এই প্রথার উদ্দেশ্যই হল, ২৫শে পা রাখা যুবক-যুবতিটাকে মনে করিয়ে দেওয়া- অনেক হল হেলাফেলা, এই দফা তোমার বিয়ের বয়স হয়েছে-বিয়ে থা কর একটা!

ডেনমার্কের তরুণ প্রজন্ম যেন এই ‘পেপার ডুডস’ বা ‘পেপার মেইডেন’দের পথে হাঁটা না ধরেন, তাই এই প্রথা মানা হয়। যে সব যুবকদের বয়স ২৫ থেকে ৩০ বছরের মধ্যে, অথচ সংসারহীন, তাদের গায়ে দারুচিনির গুঁড়া ছিটানো হয়। তবে বয়স যদি তিরিশের কোঠা পেরিয়ে যায়, তাহলে তাদের জীবন হয়ে ওঠে আরও দুর্বিষহ। তখন দারচিনিতে আর কাজ হবে না! লাগবে মরিচের গুঁড়া। ঠিক তাই, তখন মরিচের গুঁড়া ছিটানো হবে তাদের শরীরে।শুধু মরিচের গুঁড়াই না, তার সাথে ডিমও ছুড়ে মারা হয়। যাতে ডিমের সাথে মাখামাখি হয়ে সারা শরীরে মরিচের গুঁড়া মেখে থাকে।

এমনটা করার মধ্যে দিয়ে তাদের ২৫ বছর বয়সের আগেই ঘর বাঁধার বিষয়ে পরোক্ষভাবে উৎসাহিত করা হয়। তাই বলে ডেনমার্কের সবাই পঁচিশেই বিয়ে করে ফেলেন এমনটা ভাবার কোন নেই। বরং এর উল্টাটাই ঘটে থাকে। ডেনমার্কে পুরুষদের বিয়ের বয়স গড়ে সাড়ে ৩৪ আর নারীদের গড়ে ৩২ বছর।

Leave a Response

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.