টেকনাফ নিউজ:
বিশ্বব্যাপী সংবাদ প্রবাহ... সবার আগে টেকনাফের সব সংবাদ পেতে টেকনাফ নিউজের সাথে থাকুন!

সাংবাদকর্মীর ঈদ: অতঃপর

Reporter Name
  • সংবাদ প্রকাশের সময় : শনিবার, ১০ আগস্ট, ২০১৩
  • ৩৫২ বার এই সংবাদটি পড়া হয়েছে

imam khair,coxইমাম খাইর: সংবাদকর্মীরা সবার কথা লিখে থাকেন। তুলে ধরেন রাজনীতিক, সমাজসেবক,  প্রশাসনের কর্মকর্তা কিংবা ব্যবসায়ীদের ঈদের কথা। জাতীর সামনে স্পষ্ট করেন বিভিন্নজনের ঈদ আনন্দের কথা। এমনকি ঈদ জামায়াতের সংবাদটিও কাভারেজের জন্য একজন সংবাদকর্মী উদগ্রীব থাকেন। অথচ কেউ কি কোন দিন লিখেছেন একজন সংবাদকর্মীর ঈদ কেমন কাটে? তুলে ধরেছেন কি সাংবাদিকদের ঈদ আনন্দ বা নিরানন্দের কথা? এ দিক বিবেচনায় আমার দু’কলম লিখা। আমার ছোট্ট অভিজ্ঞতায় বলে, একমাত্র সংবাদকর্মীরই ঈদ কাটে পেশাগত দায়িত্বানুভূতি নিয়ে। তারা চান ঈদের দিনেও কোন সংবাদ যেন বাদ না পড়েন। সুখের সংবাদ বা দু:খের সংবাদ সবটাই তুলে ধরেন একজন সাংবাদিক। এক কথায় ছুটি শব্দটি সংবাদ কর্মীদের জন্য প্রযোজ্য নহে। এরপরও আমার মনে হয় সংবাদকর্মীরা বেশি অবহেলিত। প্রিন্ট অথবা ইলেকট্রনিক মিডিয়ায় কর্মরতরা ছাড়া মনে হয় সকল কর্মজীবিই স্ব স্ব প্রতিষ্ঠান থেকে মূল বেতনের সাথে ঈদ বোনাস নিয়ে ঈদের উৎসব মূখর সময়টুকুন পার করেন। অথচ সংবাদকর্মীরা এ থেকে বরাবরই বঞ্চিত থাকেন। অন্য পেশার লোকজন  বেতন ভাতার জন্য আন্দোলন করলেও সাংবাদিকরা এ নিয়ে তেমন হার্ডলাইনে যান না। সরলতার এ সুযোগ ব্যবহার করে তাদের শ্রমের মর্যাদা দেয়না মালিকরা। সংবাদকর্মীর সংগ্রীহিত সংবাদকে পূঁজি করে অধিকাংশ মিডিয়া মালিক স্বার্থ সিদ্ধি করলেও উপেক্ষিত থাকেন তার প্রতিষ্ঠানে কর্মরত ওই সংবাদকর্মী। এ কি ন্যায় তৎপরতার আড়ালে অন্যায় আচরণ নয়? এ থেকে উত্তরণ হওয়া চায়। যথাযথ মূল্যায়ন চায় একজন সংবাদকর্মীর। লেখাটি কারো কষ্টের কারণ হলেও বাস্তব সত্য তুলে ধরতে গিয়ে আমার করার কিছুই ছিলনা। এরপরও রক্তচুষা মিডিয়া মালিকদের টনক নড়লে লেখাটির স্বার্থকতা আসবে।

লেখক: সেক্রেটারী, বাংলাদেশ অনলাইন জার্নালিষ্ট এসোসিয়েশন, কক্সবাজার জেলা শাখা।

সংবাদটি আপনার পরিচিতদের সাথে শেয়ার করুন...

Comments are closed.

More News Of This Category
©2011 - 2020 সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত | TekNafNews.com
Developed by WebArt IT