হটলাইন

01787-652629

E-mail: teknafnews@gmail.com

সর্বশেষ সংবাদ

কক্সবাজারজাতীয়টেকনাফপ্রচ্ছদ

সন্ত্রাস ও মাদকের বিরুদ্ধে অভিযান আরো বেশি চালাতে হবে : প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা

টেকনাফ নিউজ ডেক্স: বাংলাদেশ পুলিশ কল্যাণ ট্রাস্টের উদ্যোগে প্রতিষ্ঠিত কমিউনিটি ব্যাংক বাংলাদেশ লিমিটেড এর উদ্বোধন করলেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।
সকাল ১০.০০টায় গণভবন থেকে ভিডিও কনফারেন্সির মাধ্যমে শেখ হাসিনা কমিউনিটি ব্যাংক বাংলাদেশ লিমিটেডের শুভ উদ্বোধন করেন। এসময় ভিডিও কনফারেন্সির অপর প্রান্তে যুক্ত থাকে রাজারবাগে বাংলাদেশ পুলিশ অডিটোরিয়াম ও গুলশান কমিউনিটি ব্যাংক বাংলাদেশ লিমিটেড এর কর্পোরেট অফিস।

বাংলাদেশ পুলিশের নিজস্ব ব্যাংক উদ্বোধনকালে সকল পুলিশ সদস্যকে আন্তরিক অভিনন্দন জানিয়ে প্রধানমন্ত্রী বলেন, পুলিশের অনেক সীমাবদ্ধতার সত্ত্বেও তারা অত্যন্ত আন্তরিকভাবে তাদের দায়িত্ব পালন করছে।
জঙ্গিবাদ ও সন্ত্রাসবাদ দমনে পুলিশ বাহিনী দক্ষতার পরিচয় দিয়েছে। এজন্য পুলিশ বাহিনীকে ধন্যবাদ জানাই। দেশের বিভিন্ন অনুষ্ঠানে পুলিশ বাহিনীর সদস্যরা দক্ষতার সাথে নিরাপত্তা দিয়ে থাকে। ঈদের আনন্দ ত্যাগ করে পরিবার পরিজন থেকে দূরে থেকে তাদের দায়িত্ব পালন করছে। পৃথিবী যেভাবে এগিয়ে যাচ্ছে অপরাধের ধরণও পাল্টে যাচ্ছে। সাইবার ক্রাইম দমনে পুলিশের দক্ষতা বাড়াতে উচ্চতর প্রশিক্ষণ দেয়া হচ্ছে। ২০১৩, ২০১৪ ও ২০১৫ সালে সাধারণ মানুষের পাশাপাশি পুলিশের উপর নির্মম আক্রমন করা হয়েছিল। তাতে অনেক পুলিশ সদস্য আত্মহুতি দিয়েছেন। তাদের আত্মার মাগফেরাত কামনা করি। সন্ত্রাস ও জঙ্গিবাদ দমনে পুলিশকে আরো দক্ষ হিসেবে তৈরি করতে এন্টি টেরোরিজম ইউনিট গঠন করেছি।
মাদকের বিরুদ্ধে আমাদের অভিযান চলছে, চলবে ও আরো বেশি অভিযান চালাতে হবে। পুলিশের সাথে কমিউনিটির সুসম্পর্ক তৈরি করতে কমিউনিটি পুলিশিং এ আরো বেশি জোড় দিতে হবে।

প্রধানমন্ত্রী বলেন, নিয়োগের ক্ষেত্রে পুলিশ বাহিনী অত্যন্ত স্বচ্ছতার পরিচয় দিয়েছে। খুবই স্বচ্ছতা ও দক্ষতার সাথে পুলিশের নিয়োগ হয়েছে। এতে অনেক দরিদ্র ছেলে-মেয়ে কোন রকম দুর্নীতি ছাড়া চাকরি পাওয়া পুলিশ বাহিনীকে আন্তরিক ধন্যবাদ জানাই। ট্রেনিং দক্ষতা বাড়ায়, ট্রেনিং এর উপর গুরুত্ব বাড়াতে হবে।

প্রধানমন্ত্রী বলেন, আমাদের অর্থনীতি যথেষ্ট শক্তিশালী। আমরা সেভাবে এগিয়ে যাচ্ছি। আমাদের যে অগ্রযাত্রা তা অব্যাহত রাখতে হবে। বাংলাদেশকে আর পেছনে তাকাতে হবে না। অর্থনীতি উন্নত রাখতে হলে দেশের শান্তি শৃংখলা বজায় রাখাটা অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ। আর দেশের শান্তি শৃংখলা ঠিক রাখতে পুলিশের ভূমিকা সবচেয়ে বেশি। এই কাজটা পুলিশকে দক্ষতার সাথে করতে হবে। আমি কমিউনিটি ব্যাংক বাংলাদেশ লিমিটেড এর শুভ উদ্বোধন ঘোষণা করছি। সেই সাথে আমি আশা করবো এখানে অনেক নতুন কর্মসংস্থান হবে এবং পুলিশ বাহিনীর সদস্যরা তাদের যেকোন বিপদে এই ব্যাংক থেকে সহযোগিতা পাবে।

কমিউনিটি ব্যাংক উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে অর্থমন্ত্রী আ হ ম মোস্তাফা কামাল এফসিএ, স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খাঁন, ইন্সপেক্টর জেনারেল বাংলাদেশ পুলিশ ড. মোহাম্মদ জাবেদ পাটোয়ারী বিপিএম (বার), স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের জননিরাপত্তা বিভাগের সিনিয়র সচিব মোস্তাফা কামাল উদ্দীন, ময়মনসিংহ রেন্জের ডি আইজি নিবাস চন্দ্র মাঝিসহ বাংলাদেশ পুলিশের সকল স্তরের সদস্য ও কমিউনিটি ব্যাংক বাংলাদেশ লিমিটেড এর কর্মকর্তাগণ উপস্থিত ছিলেন।

জানা গেছে, ২০১৬ সালে পুলিশ সপ্তাহে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার কাছে বাংলাদেশ পুলিশের জন্য একটি নিজস্ব ব্যাংকের প্রস্তাব করলে প্রধানমন্ত্রী তাতে সম্মতি জ্ঞাপন করেন। এরপর পুলিশ সদস্যদের স্বেচ্ছায় প্রদত্ত চাঁদার মাধ্যমে ৪ শত কোটি টাকা মূলধন সংগ্রহ করা হয়। মূলধন সংগ্রহের পর বাংলাদেশ ব্যাংকের নিকট লাইসেন্সের জন্য আবেদন করলে ১ নভেম্বর ২০১৮ সালে কমিউনিটি ব্যাংক বাংলাদেশ লিমিটেড নামে লাইসেন্স প্রদান করে বাংলাদেশ ব্যাংক। বর্তমানে কমিউনিটি ব্যাংক ৬ টি শাখা (ঢাকা- গুলশান ও মতিঝিল, চট্টগ্রাম- আগ্রাবাদ, গাজীপুর- শ্রীপুর মাওনা, নারায়নগঞ্জ- পঞ্চবটি ও হবিগঞ্জ- নোয়াপাড়া) নিয়ে যাত্রা শুরু করছে। অত্যাধুনিক কোর ব্যাংকিং সফটওয়্যার ফিন্যাকল (Edgreverve Infosys) ব্যবহার করে গ্রাহকের একাউন্টের নিরাপত্তা নিশ্চিত করা হবে। গুলশান- ১ এর রোড নং-১৪৪, প্লট-২ পুলিশ প্লাজা, কনকর্ড টাওয়ার-২ লেভেল-১০ থেকে কমিউনিটি ব্যাংক বাংলাদেশ লিমিটেড হেড অফিসের কার্যক্রম পরিচালনা করবে।

Leave a Response

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.