টেকনাফ নিউজ:
বিশ্বব্যাপী সংবাদ প্রবাহ... সবার আগে টেকনাফের সব সংবাদ পেতে টেকনাফ নিউজের সাথে থাকুন!

রোহিঙ্গা শ্রমিক দিয়ে উজাড় করছে বন, কাটছে পাহাড়

Reporter Name
  • সংবাদ প্রকাশের সময় : বুধবার, ১৮ সেপ্টেম্বর, ২০১৩
  • ১১০ বার এই সংবাদটি পড়া হয়েছে

এম বশর চৌধুরী, উখিয়া ::::উখিয়ায় সরকারী বনভূমির প্লট বিক্রি করে কোটিপতি বনে গেছে শফির বিলের আব্দুস ছালামউখিয়ার মোহাম্মদ শফির বিল এলাকার বিপুল পরিমান সরকারী বনভুমি জবর দখল করে প্লট বিক্রি করে কোটিপতি বনে গেছে আব্দুস ছালাম নামে এ ব্যক্তি। মালয়েশিয়া আদম পাচার, রোহিঙ্গা লালন, সরকারী বন ভুমি জবর দখল করে প্লট বিক্রি করে কয়েক বছরের ব্যবধানে অঢেল সম্পদের মালিক বনে যাওয়া এ ভুমি দস্যুর অপকর্মের শেষ নাই। প্রতিনিয়ত রোহিঙ্গা শ্রমিক দিয়ে বনাঞ্চল উজাড় ও পাহাড় কাটা অব্যাহত রাখায় একদিকে সরকারী বনভুমি সংকুচিত হয়ে যাচ্ছে, অপর দিকে পরিবেশের মারাত্মক তি হচ্ছে। অভিযোগে প্রকাশ, মোহাম্মদ শফিরবিল গ্রামের মৃত ইসলাম মিয়ার ছেলে আব্দুস ছালাম গত কয়েক বছর ধরে সরকারী বনভূমি জবর দখল করার মিশন নিয়ে মাঠে নেমেছে। সাম্প্রতিক সময়ে সমুদ্র উপকুলীয় এলাকার জমির মূল্য বেড়ে যাওয়ায় উক্ত ব্যক্তি রোহিঙ্গা শ্রমিক দিয়ে বিপুল পরিমান সরকারী বনভুমি জবর দখল করে নিজের নিয়ন্ত্রণে রেখে দিয়েছে। বর্তমানে তার নিয়ন্ত্রনে কমপে ৪০ একর সরকারী বনভূমি ও পাহাড় রয়েছে। স্থানীয় বন বিভাগের লোকজন ম্যানেজ করে দখলকৃত জমিতে পাহাড় কর্তন করে প্লট বিক্রি অব্যাহত রেখেছে। কিছু কিছ জমি নিজের নিয়ন্ত্রণে নিয়ে সুপারী বাগান সহ বিভিন্ন গাছের বাগান করেছে। শুধু তাই নয়, দখলকৃত জমি পাহারা দেওয়ার জন্য বেশ কিছ রোহিঙ্গা বসতি ও ৪টি টিনসেড ঘর নির্মাণ করেছে। এসব ঘর গুলো রোহিঙ্গা রফিক (৩৮) ও ফকির আহম্মদ (৪০) এর নিয়ন্ত্রনে থাকে।  স্থানীয়রা জানিয়েছে, ওই গ্রামের মোজাফ্ফর আহম্মদের ছেলে মনজুর আলম (২৯) সহ সমুদ্র উপকুলীয় এলাকার বেশ কিছু মালয়েশিয়া আদম পাচারকারী দলের সদস্য উক্ত ঘর গুলো মালয়েশিয়া আদম পাচারের জন্য নিরাপদ আস্থানা হিসাবে ব্যবহার করে লোকজন জড়ো করে থাকে। ইনানী বিট কর্মকর্তা জসিম উদ্দিন এলাহী জানান, সরকারী বনভুমি জবর দখল করার অভিযোগে ভুমি দস্যু আব্দুস ছালামের বিরুদ্ধে মামলার প্রস্তুতি চলছে।

উখিয়ায় সন্ত্রাসী হামলায় আহত- ২, বসত ঘর ভেঙ্গে দেয়ার অভিযোগ এম বশর চৌধুরী, উখিয়া (কক্সবাজার),                                                            তারিখ ১৮/৯/২০১৩ ইং। উখিয়ার হরিরণমারা গ্রামে এক অসহায় ব্যক্তির বসত ঘর ভেঙ্গে দিয়েছে ভূমি দস্যুরা। এই সময় সন্ত্রাসীরা স্বামী স্ত্রী দুই জনকে পিটিয়ে গুরুতর জখম করার অভিযোগ পাওয়া গেছে। গতকাল ১৮ সেপ্টেম্বর সকাল ১১ টায় এ ঘটনা ঘটেছে। অভিযোগে প্রকাশ, পশ্চিম হরিণমারা গ্রামের মৌলভী আবুল বশরের ছেলে হাফেজ আহম্মদের বসত ভিটার কিছু জমি দীর্ঘ দিন ধরে জোর পূর্বক জবর দখর করার পায়তারা করে আসছিল একই গ্রামের মৃত মোঃ হাকিমের ছেলে ভুমি দস্যু মোঃ ইসলাম প্রঃ গোরা মনু (৪৫) ও জাগির হোছনের ছেলে জালাল উদ্দিন (৩৫)। এ ঘটনা নিয়ে হাফেজ আহম্মদ থানায় অভিযোগ করলে ভূমিদস্যু সন্ত্রাসীরা তার বসত ঘর ভেঙ্গে দিয়ে তাকে এবং তার স্ত্রী নুর আয়েশা বেগম (৩৪) কে মারধর করে জখম করে। প্রত্যদর্শী  সব্বির আহম্মদ ও ছৈয়দ নুর জানান, ভুমি দস্যু মোঃ ইসলাম প্রঃ গোরা মনু (৪৫) এলাকার প্রভাবশালী এক ব্যক্তির ছত্র ছায়ায় থেকে দীর্ঘ দিন ধরে সাধারণ মানুষের জমি কেড়ে নিচ্ছে।

সংবাদটি আপনার পরিচিতদের সাথে শেয়ার করুন...

Comments are closed.

More News Of This Category
©2011 - 2020 সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত | TekNafNews.com
Developed by WebArt IT