টেকনাফ নিউজ:
বিশ্বব্যাপী সংবাদ প্রবাহ... সবার আগে টেকনাফের সব সংবাদ পেতে টেকনাফ নিউজের সাথে থাকুন!
শিরোনাম :
৭ জেলায় সব অফিস বন্দ ঘোষণা টেকনাফে ৯০ হাজার মিটার কারেন্ট জাল ধ্বংস হ্নীলার বিশিষ্ট সমাজসেবক মৌলভী ফরিদ আহমদ আর নেই, বাদে আছর জানাযা রোহিঙ্গার ঘরে মিলল ৫৭ লাখ দেশি-বিদেশি টাকা ও ৭০ ভরি সোনা রোহিঙ্গারা কন্যাশিশুদের বোঝা মনে করে অধিকতর বন্যার ঝূঁকিপূর্ণ জেলা হচ্ছে কক্সবাজার টেকনাফে মুজিববর্ষ উপলক্ষ্যে ৩০ পরিবারকে প্রধানমন্ত্রীর উপহার জমি ও ঘর হস্তান্তর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান-মেম্বারদের দায়িত্ব নিয়ে ডিসিদের চিঠি আগামীকাল ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচন (তালিকা) বাংলাদেশ মাধ্যমিক শিক্ষা প্রতিষ্ঠান প্রধান টেকনাফ উপজেলা কমিটি গঠিত: সভাপতি, সালাম: সা: সম্পাদক: ইসমাইল

যৌনপল্লী থেকে যুক্তরাষ্ট্রের বিশ্ববিদ্যালয়ে স্কলারশীপ!

Reporter Name
  • সংবাদ প্রকাশের সময় : মঙ্গলবার, ৬ আগস্ট, ২০১৩
  • ১৩৯ বার এই সংবাদটি পড়া হয়েছে

10দারিদ্র ও যৌন নিগ্রহের মধ্যে বেড়ে ওঠা মুম্বাই যৌনপল্লীর এক কিশোরী নিউ ইয়র্কের একটি বিশ্ববিদ্যালয়ে স্কলারশীপ পেয়ে জীবনের সব বাধা পেছনে ঠেলে দিয়েছে।     16K   24   1

রোববার এনডিটিভি জানায়, সংগ্রামী এ কিশোরির নাম শ্বেতা কাত্তি, বয়স ১৮। নিউ ইয়র্কের লিবারেল আর্টস ব্রাড কলেজে পড়ার জন্য বৃহস্পতিবার যুক্তরাষ্ট্রের উদ্দেশ্যে রওয়ানা হয়েছেন শ্বেতা। সেখানে মনোবিজ্ঞান নিয়ে পড়ার ইচ্ছা তার।

পড়াশোনা শেষে ভারতে ফিরে নিজ সমাজের তরুণীদের নিয়ে কাজ করতে চান তিনি।

“এটি আমার আশৈশব স্বপ্ন। শেষ পর্যন্ত এটি সত্য হবে তা আমি কখনো ভাবিনি,” মুম্বাই ছাড়ার আগে বলেন শ্বেতা।

নিউজউইকের চলতি বছরের “ইয়ং ওমেন টু ওয়াচ” তালিকায় স্থান পেয়েছেন আত্মপ্রত্যয়ী শ্বেতা। একই তালিকায় তালেবানের গুলিতে আহত পাকিস্তানি স্কুল বালিকা ও আন্দোলনকারী মালালা ইউসুফজাইও আছেন।

মুম্বাইয়ে কুখ্যাত কামাথিপুরা এলাকায় বড় হয়েছেন তিনি। এখানে ছোটকাল থেকেই তিনি বিভিন্ন নিগৃহের শিকার।

“এখানে আপনি প্রতিদিনই দেখবেন কোনো না কোনো নারীকে মারধর করা হচ্ছে, যে কোনো সময় পুলিশ এসে হানা দিচ্ছে, আর যে নারীরা যৌনকর্মী হিসাবে কাজ করছে তারা অসুখী,” বলেন তিনি।

“আবার বাবাসহ অনেক মানুষ আমাকে নির্যাতন করেছে, এসবের মোকাবেলা করতে হয়েছে আমাকে। আমার মা সবসময় আমার সঙ্গে ছিল। মা সবসময় বলেছে, ‘তুমিই সেরা, তোমার পক্ষে যে কোনো কিছুই করা সম্ভব।”

পারিবারিক দারিদ্র ও দলিত শ্রেণির হওয়ায় স্কুলেও তাকে বিরূপ পরিস্থিতির মুখে পড়তে হয়েছে বলে জানান শ্বেতা।

মনোবিজ্ঞানে আগ্রহের বিষয়ে তিনি বলেন, “আমি মনে করি এর মাধ্যমে ব্যক্তির পরিবর্তন সম্ভব। মনোবিজ্ঞান পড়ার পর থেকে আমি মুক্তভাবে চিন্তুা করতে শুরু করি, আমার নিজেকে এবং আমার জীবনকে শ্রদ্ধা করতে শুরু করি।”

সংবাদটি আপনার পরিচিতদের সাথে শেয়ার করুন...

Comments are closed.

More News Of This Category
©2011 - 2020 সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত | TekNafNews.com
Developed by WebArt IT