টেকনাফ নিউজ:
বিশ্বব্যাপী সংবাদ প্রবাহ... সবার আগে টেকনাফের সব সংবাদ পেতে টেকনাফ নিউজের সাথে থাকুন!
শিরোনাম :
মামুনুল হকের ব্যাপারে কোনো সিদ্ধান্ত নেয়নি হেফাজত দেশবাসীর কাছে দোয়া চেয়েছেন খালেদা জিয়া করোনার উপসর্গ দেখা দিলে ‘আইসোলেশনে’ থাকবেন যেভাবে ১২-১৩ এপ্রিল দূরপাল্লার বাস চলবে না : জনপ্রশাসন প্রতিমন্ত্রী টেকনাফে সরকারি নির্দেশনা অমান্য করে বিকাল ৫.০০ টার পর একাধিক দোকান ও শপিংমল খোলা রাখায় জরিমানা চেয়ারম্যান -মেম্বারদের চলতি মেয়াদ আরও তিন মাস বাড়ছে স্বাস্থ্যসেবা ব্যবস্থাপনায় ৬৪ জেলার দায়িত্বে ৬৪ সচিব মেয়ের বিয়ের যৌতুকের টাকা জোগাড় করতে না পেরে বাবার আত্মহত্যা মিয়ানমারে গুলিতে আরও ১০ জন নিহত যুক্তরাষ্ট্রে বিশেষ স্বীকৃতি পাচ্ছেন বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা

দেশীয় চাকচিক্যময় পোষাকে বিদেশী কোম্পানীর নামে ভোগান্ততে ক্রেতারা

Reporter Name
  • সংবাদ প্রকাশের সময় : রবিবার, ৪ আগস্ট, ২০১৩
  • ১১৩ বার এই সংবাদটি পড়া হয়েছে

DCIM100MEDIAমুহাম্মদ আবু বকর ছিদ্দিক, রামু, (কক্সবাজার) প্রতিনিধি মুসলমানদের সবচেয়ে আনন্দময় দিন হচ্ছে ঈদুল ফিতর। সেই ঈদুল ফিতরকে ঘিরে রামুতে কেনাকাটার বেশ জমে উঠেছে। অপরদিকে মানুষরা আর্থিক দিক দিয়ে দূর্বল হলেও ঈদের কেনাকাটায় লিপ্ত রয়েছেন রামুর জনসাধারণ। রামুর ১১টি ইউনিয়নে প্রত্যেকটি ষ্টেশনে কমপে ১০০০টি দোকান পাট ঈদের কেনা কাটা পুরুদুমে চলছে। তার মধ্যে এবারের ঈদে গরিব অসহায় লোকজন কাপড় চোপড়ের দাম চড়া হওয়ার কারণে ক্রেতারা খুবই হতাশ। রামুর সদর ইউনিয়নের ফতেখাঁরকুলের ঐতিহ্যবাহী ফকিরাবাজার সহ রামু চৌমুহনী ষ্টেশনের মার্কেটগুলি হচ্ছে- রাহাত প্লাজা, সুপার মার্কেট, হাবিব মার্কেট, হাজী কমপ্লেক্স, সরওয়ার প্লাজা, চৌধুরীমার্কেট, আমিন মার্কেট, এন.ইসলাম প্লাজা, তাহের প্লাজা, আওনাত শপিং সেন্টার, স্কুল মার্কেট, তানি শপিং কমপ্লেক্স, মজিদিয়া শপিং কমপ্লেক্স এবং যারা পোষাক সেলাই করার কথা ভাবছেন তারা আগে ভাগে ছুটছেন বিভিন্ন টেইলার্সে। তবে বেশিরভাগ টেইলার্সে এখন নতুন অর্ডার নিতে চাচ্ছে না। ঈদের বৈচিত্রময় শাড়ি, থ্রিপিচ, পাঞ্জাবী, ফতুয়ার জন্য ফ্যাশন সচেতন তরুণ, তরুণীরা ছুটছেন শহরের ভাল বড় দোকানগুলোতে। জমে উঠেছে ঈদের বাজার। কেনাকাটায় ব্যস্ত সাধারণ মানুষ। বর্ষার গুটি গুটি বৃষ্টির মধ্যেও কাপড়ের দোকানে ক্রেতাদের ভিড়। ক্রেতাদের অবস্থা বুঝে দোকানিরা লাগামহীন দাম হাকাচ্ছে। এতে ক্রেতারা অনেকটা হতাশ। রাহাত প্লাজা মার্কেটের নীল আচল কাপড়ের দোকানের মালিক হাজী ফরিদুল আলম ও পরিচালক আবু বকর জানান, আধুনিক পোষাকের দিকে ক্রেতাদের নজর বেশী। রুচিশীল ক্রেতারা সাদামাটা ডিজাইনের উপর হাতের কাজ করা ও পাথরের থ্রি-পিচ বেশি কিনছেন। তিনি আরও জানান, ২০১৩ ইং সালের নতুন শাড়ীর মধ্যে লেহেঙ্গা শাড়ি পাঠিকাটা শাড়ী, জামদানী শাড়ী, কারিনা জরজেট শাড়ী, পাটিকা শাড়ী, থ্রি-পিচের মধ্যে পাকিস্তানি থ্রি-পিচ, লাকী থ্রি-পিচ, কালারা থ্রি-পিচ সহ বিভিন্ন নতুন ডিজাইনের এসেছে। মা-মুনি ষ্টোরের মালিক মোঃ আব্দুল মান্নান জানান, এবারের ঈদের ছোট ছেলে-মেয়েদের নতুন ডিজাইনের কাপড় টপ ডিভাইডার, পাটি ফ্রকসহ ও লেহেঙ্গার সহ বিভিন্ন কাপড় এসেছে। ছেলেরা কিনছেন শার্ট, পাঞ্জাবী, ফতুয়া, কেউ আবার শর্ট শার্ট এর দিকে নজর দিচ্ছেন। তরুণীরা থ্রিপিচ কেনার পাশাপাশি শাড়িও কিনছেন। বাজারে এবার রং-বেরংয়ের বাহারী শাড়ি উঠলেও কার্টচুপির কাজের শাড়ি ক্রেতাদের পছন্দ বেশি। বাজারে গিয়ে এবার দেখা যায় ক্রেতারা বেশিরভাগ দেশী পোষাকের দিকে নজর দিচ্ছেন। তবে তাতেও থাকতে হবে বৈচিত্র্যময় হাতের কাজ। বেশিরভাগ ছোট ছোট ছেলে-মেয়েরা চাকচিক্যময় পোষাকের উপর পছন্দ বেশি। তবে আধুনিক পোষাকের মধ্যে জিন্সের পোষাকের চাহিদা অনেক বেশি। ঈদের বাজারে আসা ক্রেতারা জানান, এবারে ঈদের পোষাকে দাম নাগালের বাইরে হওয়ায় হতাশ সাধারণ মানুষ। ক্রেতারা আরো জানান দেশীয় চাকচিক্যময় পোষাকে বিদেশী কোম্পানীর নাম ভাঙ্গিয়ে বিপাকে ক্রেতারা প্রেরক : মুহাম্মদ আবু বকর ছিদ্দিক, রামু, কক্সবাজার। তারিখ ঃ ০৪-০৮-২০১৩ ইং

 

সংবাদটি আপনার পরিচিতদের সাথে শেয়ার করুন...

Comments are closed.

More News Of This Category
©2011 - 2020 সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত | TekNafNews.com
Developed by WebArt IT