টেকনাফ নিউজ:
বিশ্বব্যাপী সংবাদ প্রবাহ... সবার আগে টেকনাফের সব সংবাদ পেতে টেকনাফ নিউজের সাথে থাকুন!

টেকনাফ দিয়ে সারাদেশে ছড়িয়ে পড়ছে মাদক ব্যবসা

Reporter Name
  • সংবাদ প্রকাশের সময় : শুক্রবার, ২৩ আগস্ট, ২০১৩
  • ১৪৯ বার এই সংবাদটি পড়া হয়েছে

সাপ্তাহিক সোনার বাংলা ###মিয়ানমার ও বাংলাদেশের সীমান্ত এলাকা দিয়ে বানের পানির মতো মাদক ঢুকে ছড়িয়ে পড়ছে সারা দেশে। ঠেকানো যাচ্ছে না এসব বিস্তৃত নেটওয়ার্কের রমরমা বাণিজ্য। এর অধিকাংশেরই গন্তব্য চট্টগ্রাম সহ রাজধানী ঢাকা। মাদক ব্যবসায়ীদের সারা দেশে ছড়িয়ে ছিটিয়ে থাকা শক্তিশালী জালের মাধ্যমে সহজে ছড়িয়ে পড়ছে আগামীর প্রজন্ম ও যুব সমাজ ধ্বংসকারী মরণনেশা মাদক। আর আইন-শৃঙ্খলা রাকারী বাহিনীর সদস্য ও স্থানীয় রাজনৈতিক নেতাদের সহযোগিতায় আরো সুচারুভাবে চলছে এ ব্যবসা। আইন শৃংখলা রাকারী বাহিনীর অভিযানে মাদক ব্যবসার সাথে জড়িত মাঠ পর্যায়ে লোকজন ধরা পড়লেও মূল হোতারা সব সময় রয়ে যায় ধরা ছোঁয়ার বাইরে। দেশের বিভিন্ন স্থানে মাদক কেনা বেচা হলেও এর মূল বাজার হলো রাজধানী ঢাকা। তবে এ বিশাল বাজারের চাহিদা মেটানোর পেছনে প্রধান ও অকল্পনীয় ভূমিকা পালন করছে মাদকের ট্রানজিট পয়েন্ট কক্সবাজার ও জেলার সীমান্ত উপজেলার টেকনাফ থানা। বিভিন্ন সূত্রে জানা যায়, রহস্যজনকভাবে পর্যটন নগরী কক্সবাজারের হোটেল মোটেল জোনগুলো প্রশাসনের জানা অজানার ফাঁকে এই নিষিদ্ধ মাদক ব্যবসার ঝড় তুলছে ও মাতিয়ে রাখছে মাদক পিপাসু পর্যটকদের। পাশাপাশি স্থানীয়রাও সে সুযোগ হাত ছাড়া করছে না, এ যেন তাদের হেফাজতখানা। সূত্রমতে, শহরের হোটেল জিয়া গেস্ট ইন, সুগন্ধা পয়েন্টসহ কলাতলীস্থ পাহাড়ী এলাকা, হলিডে মোড়, সমিতি পাড়া, ঝাউতলা, গাড়ির মাঠ, বাহার ছড়া, ফিশারীঘাট, লালদিঘীর পাড়, পেশকার পাড়া, বাজারঘাটা, মোহাজের পাড়া, সার্কিট হাউস এলাকা, আইবিপি মাঠ (মেথর পাট্টি), সদর হাসপাতাল এলাকা, গোলদীঘির পাড়, ঘোনার পাড়া, রাখাইন পাড়া, বৌদ্ধমন্দির এলাকা, বইল্যাপাড়া, বৌদ্ধ মন্দির, খাজা মঞ্জিল এলাকা, বার্মিজ মার্কেট এলাকা, ফুলবাগ সড়ক এলাকা, চাউল বাজার, টেকপাড়া, মাঝের ঘাট, পাহাড়তলী, ইসুলোরঘোনা, বার্মা পাড়া, টেকনাইফ্যা পাহাড়, হালিমা পাড়া, রহমানিয়া মাদ্রাসাস্থ পাহাড়ি এলাকা, বড়–য়া পাড়া, উত্তর তারাবনিয়াছরা এলাকা, কমার্স কলেজের পার্শ্বস্থ এলাকা, চৌধুরী ভবনের বিপরীতে খুরুশকুলের নতুন রাস্তার বিভিন্ন পয়েন্ট, খুরুশকুলের বিভিন্ন এলাকা, দণি রুমালিয়াছরা, ডালিয়া কলোনী এলাকা, দণি সমিতি পাড়া, গোদার পাড়া, আলীরজাঁহাল, এসএমপাড়া, সিটি কলেজ এলাকা, বিডিআর ক্যাম্প এলাকা, বিডিআর ক্যাম্পে নব নির্মিত রেল স্তম্ভ ও তার আশপাশ এলাকা এবং টার্মিনালস্থ এলাকাসহ জেলার চু অগোচরে গা ঢাকা দিয়ে থাকা জানা অজানার বিভিন্ন এলাকা বস্তি, বাজারগুলো মাদকের নিরাপদ স্থান। এসব এলাকাগুলো যেন মাদকের শক্তিশালী জাল। যেখানে গড়ে উঠেছে মাদকের শক্তিশালী নেটওয়ার্ক। নেশার বড়ি ‘ইয়াবা’ মিয়ানমার থেকে কক্সবাজারের টেকনাফ সীমান্ত দিয়ে প্রবেশ করে সারাদেশে ছড়িয়ে পড়ে। সূত্র জানায়, ইয়াবা পাচারকারী হিসেবে ৩৭৬ জনের নামের তালিকাও রয়েছে। এর মধ্যে অন্তত ২০ জন নারী। তবে রহস্যজনকভাবে সীমান্তের অনন্ত প্রহরী (বর্ডার গার্ড বাংলাদেশ) বিজিবি’র চোখে ধুলু দিয়ে পাচারকারী সিন্ডিকেটরা সারাদেশের সর্বত্র এসব মাদক দ্রব্য পাচার করছে তা নিয়ে সচেতন মহলের মাঝে উৎকণ্ঠার দেখা দিয়েছে চরমভাবে। পুলিশ ও সংশিষ্ট সূত্রে জানায় ২০০১ সালের দিকে টেকনাফে সর্ব প্রথম ইয়াবার চালান নিয়ে আসেন মিয়ানমারের নাগরিক পিচ্চি আনোয়ার। এখন টেকনাফের ৬ শতাধিক তরুণ যুবক ইয়াবা পাচারের সঙ্গে জড়িত। স্থানীয় বিভিন্ন সূত্রে জানা গেছে ঢাকার বাইতুল মোকারম মার্কেট এলাকার জাকির মোল্লা টেকনাফ থেকে আসা সিংহভাগ ইয়াবার চালান নিয়ে যেত। র‌্যাবের হাতে আটক ইয়াবা ব্যবসায়ী আমিন হুদার মূল সহযোগী হল ওই জাকির মোল্লা। এছাড়া বাসাবোর হুমায়ুন, উত্তরার বাবুল, ফোরকান, গুলশানের দীপু টেকনাফ থেকে এখনও নিয়মিত ইয়াবার বড় বড় চালান নিয়ে যায় ঢাকায়। কক্সবাজারের টেকনাফের লেংগুর বিল এলাকার মোস্তাক, দিদার, পশ্চিম গোদার বিলের সেলিম ফারুক, কোলাল পাড়ার মোস্তাক, ডেইল পাড়ার রশিদ,  তাদের সঙ্গে ২২ জনেরও একটি সিন্ডিকেট রয়েছে বলে সূত্রে প্রকাশ। এরা ঢাকা, চট্টগ্রামসহ সারা দেশের সর্বত্র ইয়াবা সরবরাহ করে। কৌতূহলী ও উৎসুক সচেতন মহলের প্রশ্ন, এ ব্যাপারে স্থানীয় ও জাতীয় পত্রিকায় বহুবার লেখালেখি হলেও রহস্যজনক কারণে প্রশাসন তাদের বিরুদ্ধে কোনোভাবে পদপে নিতে পারছেন না কেন? কোথাই এর জট? ইত্যাদি। বিভিন্ন সংস্থার জরিপের ধারণা মতে দেশে ২৫ লাখের মত মাদকসেবী আছে। মাদক দ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদপ্তর সূত্রে জানা গেছে একজন মাদকাসক্ত প্রতিদিন মাদকের পেছনে গড়ে ৮৭ দশমিক ৫ টাকা খরচ করে। এই হিসেবে ২৫ লাখ মাদকাসক্ত প্রতি মাসে খরচ করে ৬’শ ৫৬ কোটি ২৫ লাখ টাকা, যা বৎসরে দাঁড়ায় ৭ হাজার ৮’শ ৭৫

সংবাদটি আপনার পরিচিতদের সাথে শেয়ার করুন...

Comments are closed.

More News Of This Category
©2011 - 2020 সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত | TekNafNews.com
Developed by WebArt IT