হটলাইন

01787-652629

E-mail: teknafnews@gmail.com

সর্বশেষ সংবাদ

প্রচ্ছদবিজ্ঞান ও প্রযুক্তি

টেকনাফে রবি নিয়ে আর নয়

নুর মোহাম্মদ, সহকারী শিক্ষক, টেকনাফ বার্মিজ সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়:::

সেই ২০০৫ সাল থেকে শুরু। দীর্ঘ এক যুগেরও বেশি সময় ধরে আছি রবির সাথে। মাঝেমধ্যে জামেলা করলেও সয়ে নিয়েছি। কিন্তু এখন আর পারছিনা রবির সাথে থাকতে। সংসারটি বুঝি এবার ভাঙতেই হবে। ভাবছি খুব শীগ্রই ডিভোর্স দেব রবিকে।

দীর্ঘ দু’সপ্তাহেরও বেশি হলো। সীমান্ত উপজেলা টেকনাফের হোয়াইক্যং ইউনিয়ের উলুবনিয়াসহ সীমান্তবর্তী অনেক গ্রামে রবি নেটওয়ার্ক নিয়ে সীমাহীন ভোগান্তিতে আছে গ্রাহকরা। জরুরী প্রয়োজনেও কারো সাথে মোবাইলে কথা বলার সাধ্য নেই। গ্রামে থাকলে মনে হয় যেন কবরে আছি। অনেক চেষ্টায় রিং হলেও কল রিসিভ করার সাথে সাথে লাইন কেটে যাই, যাকে নাকি বলা হয় কলড্রপ।

ওহ! পাঠকদের জ্ঞাতার্তে বলে রাখি যে, রবি কিন্তু গ্রাহক সেবাই খুবই এডভান্স বলা যায়!
গ্রাহকদের কষ্ট এরা হৃদয় দিয়ে অনুভব করে!
সারাদিন কলড্রপের পর দিন শেষে ১/২ মিনিট ফ্রি কলও দেয় ২/১ ঘন্টার জন্য, যা বলতে গেলে কোন কাজেই আসেনা। গ্রাহকদের ক্ষতি বুঝতে না পারলেও, নিজের লাভটা কিন্তু ঠিকই বুঝে এরা।

রবির অত্যচারে অতিষ্ঠ হয়ে অভিযোগ জানাবার জন্য ফোন দিই ১২৩ নম্বরে। কিন্তু যেই লাউ,সেই কদু। শুধু বলে অমুক সেবা পেতে ১ চাপুন, তমুক সেবা পেতে ২ চাপুন। অনেক্ষন ধরে তাদের নির্দেশনা মতো টিপাটিপি করলাম। কিন্তু কাজের কাজ কিছুই হলনা।

বাস্তব কিনা জানিনা। অনেকেই বলে সীমান্তে অপরাধ কমাতে নাকি নেটওয়ার্ক বিকলের এই নাটক। আচ্ছা সীমান্তে নেটওয়ার্ক থাকার কারণে যদি অপরাধ বেড়ে যায়, তাহলে এতদিন মোবাইল অপারেটর গুলো সীমান্তে ফ্রিকোয়েন্সি দিল কেন? এতদিন সংঘটিত অপরাধে তারা কি প্রত্যক্ষ বা পরোক্ষভাবে দায়ী নয়?

যদি নেটওয়ার্ক বিকল করে অপরাধ দমানো যায়, তাহলে সারাদেশে প্রতিদিন সংঘটিত শত শত অপরাধ দমনের জন্য কি এই কৌশলটি প্রয়োগ করা যায়না?

অনেক সহ্য করেছি রবির অত্যচার। এবার থেকে সাথে সাথে অ্যাকশান। যে অপারেটর ডিস্টার্ব করবে, সাথে সাথে বাদ।

সীমান্ত জনপদের বন্দুরা বলেন, কোন অপারেটরের সিম ব্যবহার করলে ভাল হয়?

লেখক:
নুর মোহাম্মদ
সহকারী শিক্ষক
টেকনাফ বার্মিজ সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়
সীমান্তের জনপদ থেকে

[ বিশেষ দ্রষ্টব্য: পারলে পোস্টটি শেয়ার করে কর্তৃপক্ষের নজরে আনুন।]

Leave a Response

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.