টেকনাফ নিউজ:
বিশ্বব্যাপী সংবাদ প্রবাহ... সবার আগে টেকনাফের সব সংবাদ পেতে টেকনাফ নিউজের সাথে থাকুন!

টেকনাফের লেদা রোহিঙ্গা ক্যাম্প শত শত নিরীহ মানুষ মায়ানমারও থাইল্যান্ড কারাগারে

Reporter Name
  • সংবাদ প্রকাশের সময় : মঙ্গলবার, ১ অক্টোবর, ২০১৩
  • ১২৬ বার এই সংবাদটি পড়া হয়েছে

কেন্দ্রিক গডফাদাররা ধরা ছোঁয়ার বাইরে ছৈয়দুল আমিন চৌধুরী,::::কক্সবাজার জেলার সীমান্ত উপশহর টেকনাফের লেদা আন-রেজির্ষ্টাড ক্যাম্পের মালয়েশিয়ার দালালদের খপ্পরে পড়ে সাগর পথে মালয়েশিয়া যেতে গিয়ে মায়ানমার ও থাইল্যান্ডের বিভিন্ন কারাগারে শত শত মানুষ এখন মানবেতর জীবন যাপন করছে। অনুসন্ধানে জানা যায়, অনেকে পরিবারের সাথে যোগাযোগ র্পযন্ত করতে পারছেনা। এসব পরিবারে এখন নেমে এসেছে অনিশ্চিত কালো ছায়া।কারন বেশীর ভাগ পরিবারের কর্মকম ব্যাক্তিই দালালদের খপ্পরে পড়ে অনিশ্চিত সুখের সন্ধানে ভিটে বাড়ি বিক্রী করে এ পথ বেচে নিচ্ছে। ভুক্তভোগী পরিবার গুলোর স্ত্রী-সন্তান-পিতা-মাতা স্বজন হারানোর বেদনায় দু’চোখের জল ফেলে নিয়মিত কান্নায় আকাশ বাতাস ভারী করছে।দালাল চক্রের সাথে যোগাযোগ করলে তারা বিভিন্ন প্রকার আশ্বস্থ করেও কোন প্রকার সুরহা দিচ্ছেনা বলে ভুক্তভোগী পরিবার গুলো অভিযোগ করেন।এছাড়া অনেকে আবার বিভিন্ন দেশের কারাগারে বন্দি থাকা অবস্থায় দালালদের সাথে সেদেশের মানব পাচারকারী দালালদের সখ্যতার সুবাধে পরিবার-পরিজনের কাছ থেকে দ্বিতীয় দফা মোটা অংকের টাকা আদায় করে চলে যাওয়া বাংলাদেশী নাগরিকদের ছাড়িয়ে নেওয়ার বিভিন্ন প্রতারণার অভিযোগ উঠেছে।এভাবে সপ্নের দেশ মালয়েশিয়া যেথে গিয়ে উনচিপ্রাং এলাকার মরহুম মৌলানা আব্দুর রাজ্জাক  ছেলে নুরুল আবছার (১৯),লেচুপ্রাং এলাকার শওকত আলীর ছেলে সাদ্দাম হোছন,পশ্চিম সিকদার পাড়ার মোঃ শফির ছেলে নুরুল আমিন (৩০),পশ্চিম লেদার পীর মুহাম্মদের ছেলে মোঃ সেলিম (২০), হ্নীলা পুরাতন বাজার এলাকার আব্দুল মাবুদ মিস্ত্রীর ছেলে ফয়সাল (১৮), আলী খালী গ্রামের মৃত অছিয়র রহমানের ছেলে আব্দু শুক্কুর (৩৫), রঙ্গী খালীর আবদুস সোবহানের পুত্র শফিক (১৮), একই এলাকার মন্জুরের পুত্র শফি আলম (২০), লাল মোহাম্মদের পুত্র সোনা মিয়া (৩০), জমির উদ্দীনের পুত্র মেহের আলী (৩৫), আবু শামার পুত্র আব্দুল মজিদ (২০),  জাদী মুরা গ্রামের আবু ছিদ্দীকের ছেলে হাবিবুর রহমান (১৭) ও মৃত নুর মোহাম্মদের ছেলে খায়রুল আমিন (১৬) সহ বিভীন্ন  গ্রামের   এবং রোহিঙ্গা ক্যাম্পের শত শত মানুষ নিখোঁজ রয়েছে। স্বজনহারা পরিবাবারের সদস্যরা দালালদের নির্যাতনের ভয়ে প্রতিবেদককে নাম প্রকাশ না করার শর্তে সন্তান-স্বামী হারানোর এ কথা জানান। লেদা টালের চেয়ারম্যান খ্যাত হাফেজ আয়ুবের নেতৃত্বে লেদা আন-রেজির্ষ্টাড রোহিঙ্গা ক্যাম্পের বি-ব্লকের নুর মুহাম্মদ মাঝি,এ-ব্লকের ডাঃ কবির,বি-ব্লকের জাহেদ, সি-ব্লকের নাজির হোসন, ডি-ব্লকের আব্দু করিম, ই-ব্লকের মোঃ শফি মাঝি, ই-ব্লকের নুরু, বি-ব্লকের আবু ছিদ্দিক, সি-ব্লকের বাইল্ল্যা, ও হামিদ হোসনের নেতৃত্বে বিশাল সিন্ডিকেটটি মাসের পর মাস এভাবে মালয়েশিয়া আদম পাচার করে যাচ্ছে।এক দিকে আদম পাচারে জড়িত এসব গডফাদাররা আদম পাচারের মাধ্যমে লাখ লাখ টাকা পকেটস্ব করলেও  এখনও শত শত মা ও শিশু তাদের প্রিয় সন্তান অথবা প্রাণ প্রিয় বাবার জন্য চোখের জলে বুক ভাসাচ্ছে। এদিকে টেকনাফ থানার ওসি ফরহাদ ক্যাম্প কেন্দ্্রীক দালাল চক্রটির বিরুদ্ধে সাড়াঁশি অভিযানের কথা ব্যক্ত করে বলেন, দালাল যতই রাঘব বোয়াল হউক না কেন তাদেরকে গ্রেপ্তার করতে পুলিশী অভিযান অব্যাহত থাকবে।######
ছৈয়দুল আমিন চৌধুরী কক্সবাজার।
০১৬৮৩০৫৫২৪৪

সংবাদটি আপনার পরিচিতদের সাথে শেয়ার করুন...

Comments are closed.

More News Of This Category
©2011 - 2020 সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত | TekNafNews.com
Developed by WebArt IT