টেকনাফ নিউজ:
বিশ্বব্যাপী সংবাদ প্রবাহ... সবার আগে টেকনাফের সব সংবাদ পেতে টেকনাফ নিউজের সাথে থাকুন!

ইসলামাবাদে পিটিয়ে যুবক হত্যার ঘটনায় জড়িতরা

Reporter Name
  • সংবাদ প্রকাশের সময় : শুক্রবার, ১৮ অক্টোবর, ২০১৩
  • ৯৯ বার এই সংবাদটি পড়া হয়েছে

এস. এম. তারেক, ঈদগাঁও, কক্সবাজার সদরের ইসলামাবাদে ১০ অক্টোবর পিটিয়ে যুবক হত্যার ঘটনায় জড়িতরা গা দিয়েছে। ঘটনার ৩ দিনের মাথায় গত ১৩ অক্টোবর নিহতের স্ত্রী মনোয়ারা বেগম বাদী হয়ে কক্সবাজার সদর মডেল থানায়হত্যা  মামলা রজু করলেও অদ্যাবধি কোন আসামীকে গ্রেফতার করতে পারেনি পুলিশ। মামলাটির তদন্তকারী কর্মকর্তা নিযুক্ত করা হয়েছে ঈদগাঁও পুলিশ তদন্ত কেন্দ্রের এস.আই নাসির উদ্দিনকে। আসামী গ্রেফতারের  ব্যাপারে তদন্তকারী কর্মকর্তা এস.আই নাসিরের  দৃষ্টি আকর্ষণ করা হলে তিনি জানান, আসামীদের গ্রেফতারের জোর চেষ্টা চলছে। প্রায় সব আসামী এলাকার বাইরে চলে  যাওয়াতে তাদের অবস্থান চিহ্নিত করার চেষ্টা চলছে, আশা করছি, খুব শ্রীঘ্রই আসামীদের গ্রেফতার করতে সক্ষম হব। প্রসংগত গত ১০ অক্টোবর সদরের ইসলামাবাদ ইউনিয়নের  রিক্্রা চালক আহমদ উল্লাহকে  গরু চোর সন্দেহে এলাকার কিছু অতি উৎসাহী যুবক ব্যাপক মারধর ও শারীরিক নির্যাতন চালিয়ে ওই গ্রামের শফির ব্রীজ নামক স্থানে ফেলে রেখে সটকে পড়ে। পরে স্থানীয়দের সহায়তায় আহমদ উল্লাহকে ঈদগাঁও’র একটি কিনিকে নিয়ে যাওয়া হলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষনা করে। ঘটনার ৩ দিন পর ১৩ অক্টোবর নিহতের স্ত্রী বাদী হয়ে কক্সবাজার সদর মডেল থানায় এজাহার নামীয় ১৭ জন, তম্মধ্যে শফিউল আলম (৪২) পিতা-মৃত মোজাহের আহমদ সাং-ইউসুফেরখীল , ইসলামাবাদকে প্রধান আসামী এবং আরো ৭/৮ জনকে অজ্ঞাতনামা হিসেবে আসামী করে থানায় মামলা দায়ের করে। মামলা নং-৬৫,ধারা- ৩০২/৩৪ দঃবিঃ।  নিহতের বাড়ী একই ইউনিয়নের পূর্ব বোয়ালখালী গ্রামে। এদিকে স্থানীয় সুত্রগুলো জানিয়েছে ওয়ার্ড মেম্বার রশিদ আহমদের অবহেলার কারণে এ ঘটনা ঘটলেও প্রভাবশালী মহলের তদবিরের কারণে তাকে মামলায় আসামী করা হয়নি। এ ব্যাপারে মেম্বার রশিদের সাথে যোগাযোগ করা হলে সে নিজেকে নির্দোষ বলে দাবী করে।

১৮ সেপ্টেম্বর’১৩      চৌফলদন্ডীতে শিক মারধরের ঘটনার বিচার সম্পন্ন

এম , আরমান জাহান , ঈদগাঁও কক্সবাজার সদরের চৌফলদন্ডী ইউনিয়নের সবুজবাগ স্কুল এন্ড কলেজের শিককে অভিভাবক কর্তৃক মারধরের ঘটনার বিচার সম্পন্ন হয়েছে। ১৮তারিখ শুক্রবার সকাল ১০টায় বিদ্যালয়ের শিক মিলনায়াতনে এ বিচার প্রক্রিয়া অনুষ্ঠিত হয়। প্রাপ্ত তথ্যে প্রকাশ , স্কুল ম্যানেজিং কমিঠির চেয়ারম্যান হাবিবুলাহের সভাপতিত্বে প্রধান শিক মনির আহমদের পরিচালনায় এ বিচারিক অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন সদর উপজেলা যুবলীগ সভাপতি বদিউল আলম আমির , সবুজবাগ ট্রাস্টের ভাইস চেয়ারম্যান মাঈন উদ্দিন ফারুক , ট্রাস্ট সেক্রেটারী মঞ্জুর আলম , টাস্ট সহ সেক্রেটারী তাহের বেলাল, ট্রাস্ট কোষাধ্য মঞ্জুর আলম, চৌফলদন্ডী ইউনিয়ন আঃ লীগ সভাপতি এহছানুল হক , ইউনিয়ন আঃ লীগ সেক্রেটারী শাহজাহান মনির ।     আরো উপস্থিত ছিলেন , চৌফলদন্ডী ইউনিয়ন যুবদল সভাপতি ও ট্রাস্ট সদস্য জহিরুল হক লুটাস , চৌফলদন্ডী ৬ নং ওয়ার্ড মেম্বার মোহাম্মদ জঙ্গী ,৭ নং ওয়ার্ড মেম্বার গিয়াস উদ্দিন  ও সাংবাদিক এম আরমান জাহান প্রমূখ। সবুজবাগ বিদ্যালয়ের গণিত শিক নুরুল ইসলামের উপর আঘাতকারী অভিভাবক মৃত ওবাইদুল হকের পুত্র মনির আলমকে স্কুল ম্যানেজিং কমিঠির পরিচালনা পরিষদবর্গের ও এলাকার মান্যগণ্য ব্যক্তি ও উপস্থিত শতাধিক ছাত্র ও অভিভাবকদের সম্মুখে উপযুক্ত আর্থিক ও শারিরীক শাস্তি দানের মাধ্যমে এ বিচার সম্পন্ন হয়। উলেখ্য , বর্ণিত স্কুলের গণিত শিক নুরুল ইসলামকে খামার পাড়ার মৃত ওবাইদুল হকের পুত্র মনির আলমের শিশু শ্রেণিতে পড়–য়া ছাত্রের স্কেল হারানো কেন্দ্র করে ২৬ সেপ্টেম্বর প্রথমে গালিগালাজ পরে ৩০ সেপ্টম্বর ঐ ঘটনার জের ধরে উক্ত শিককে স্কুলের টিফিন বিরতিতে হোটেলে লাথি- কিল-ঘুষি মেরে আহত করে । এ ঘটনার বিচারের নির্ধারিত সময়ে উপযুক্ত আর্থিক জরিমানসহ শারিরিক শাস্তি দানের মাধ্যমে এ বিচার সম্পন্ন হওয়ায় স্কুল গভর্নিং বডির সদস্য ও বিচার প্রক্রিয়ায় অংশগ্রহণকারী সকলের কাছে সকল শিকসহ ছাত্র-ছাত্রী ও এলাকাবাসী কৃতঞ্জতা সহ সন্তোষ প্রকাশ করেছে।

সংবাদটি আপনার পরিচিতদের সাথে শেয়ার করুন...

Comments are closed.

More News Of This Category
©2011 - 2020 সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত | TekNafNews.com
Developed by WebArt IT