টেকনাফ নিউজ:
বিশ্বব্যাপী সংবাদ প্রবাহ... সবার আগে টেকনাফের সব সংবাদ পেতে টেকনাফ নিউজের সাথে থাকুন!

খালেদা জিয়ার ঈদের শুভেচ্ছা বিনিময়

Reporter Name
  • সংবাদ প্রকাশের সময় : মঙ্গলবার, ৩০ অক্টোবর, ২০১২
  • ১৪৯ বার এই সংবাদটি পড়া হয়েছে

টেকনাফ নিউজ ডেস্ক : বিরোধীদলীয় নেতা খালেদা জিয়া ঈদের শুভেচ্ছা বিনিময় করেছেন। শনিবার ঈদের দিন দুপুরে কূটনীতিক, রাজনীতিক, বিশিষ্ট নাগরিক ও সর্বস্তরেরর জনগণের সঙ্গে শুভেচ্ছা বিনিময়ের পর এক প্রতিক্রিয়া তিনি বলেছেন, দেশের মানুষ মোটেও ভালো নেই। অর্থনৈতিক দুরবস্থার কারণে সত্যিকার অর্থে মানুষ এবার ঈদ উদযাপন করতে পারেননি।
কোরবানির হাটে ব্যাপক পশুর আমদানির প্রসঙ্গ টেনে বিএনপি চেয়ারপার্সন বলেন, এবার পশুর হাটে অনেক পশু এসেছে। কিন্তু ক্রেতার সংখ্যা ছিল কম। খবরের কাগজেও এসেছে ক্রেতার সংখ্যা কম হওয়ায় বিক্রি কমেছে। ব্যবসায়ীরা মাথায় হাত দিয়েছেন। এ থেকে বোঝা যায় মানুষের পকেটে টাকা নেই। সরকার শুধু ঘরে-বাইরে জনগণের নিরাপত্তা দিতেই ব্যর্থ হয়নি, তাদের ভাত-কাপড় ও কর্মসংস্থান করতে পারেনি। সরকার সবক্ষেত্রেই ব্যর্থ।
তিনি ব্যর্থতার দায় নিয়ে নির্দলীয় সরকারের কাছে ক্ষমতা ছেড়ে দিতে সরকারের প্রতি আহ্বান জানিয়ে বলেন, এর মাধ্যমে আপনারা নিজেদের জনপ্রিয়তা যাচাই করুন। তা না হলে সরকারের বিরুদ্ধে আন্দোলন করা হবে।
খালেদা জিয়া দুপুর পৌনে ১২টায় ইস্কাটন গার্ডেনের লেডিস ক্লাবে ঢাকায় নিযুক্ত বিভিন্ন দেশের রাষ্ট্রদূত, হাইকমিশনার ও কূটনীতিকদের সঙ্গে শুভেচ্ছা বিনিময় করেন। এরপর সাড়ে ১২টা থেকে দুপুর ১টা ১০ মিনিট পর্যন্ত রাজনীতিক, ব্যবসায়ী, শিক্ষক, সাহিত্যিকসহ সমাজের সর্বস্তরের মানুষের সঙ্গে ঈদের শুভেচ্ছা বিনিময় করেন।
কূটনৈতিক কোরের ডিন শাহের মোহাম্মদ, পাকিস্তানের হাইকমিশনার আফরাসিয়াব মেহেদি হাশমী কোরেশী, ইন্দোনেশিয়া, মালয়েশিয়া, ইরান, কাতারসহ মুসলিম দেশের কূটনীতিকরা বিরোধীদলীয় নেতার সঙ্গে ঈদের শুভেচ্ছা বিনিময় করেন।
যুক্তরাজ্যের হাইকমিশনার রবার্ট গিবসন, ভারতের হাইকমিশনার পংকজ শরণসহ জাপান, কোরিয়া, ভ্যাটিকান সিটি, শ্রীলঙ্কা, জার্মানি, ডেনমার্ক, অস্ট্রেলিয়াসহ বিভিন্ন দেশের কূটনীতিক এবং বিশ্বব্যাংকসহ দাতা সংস্থার প্রতিনিধিরা খালেদা জিয়ার সঙ্গে ঈদের শুভেচ্ছা বিনিময় করেন।
এফবিসিআিই সভাপতি একে আজাদের নেতৃত্বে মীর নাসিরউদ্দিন, মোহাম্মদ আলীসহ একটি ব্যবসায়ী প্রতিনিধি দলও বিরোধীদলীয় নেতার সঙ্গে ঈদের শুভেচ্ছা বিনিময় করেন।
রাজনৈতিক নেতাদের মধ্যে জামায়াতে ইসলামীর সহকারী সেক্রেটারি জেনারেল ব্যারিস্টার আবদুর রাজ্জাক, গণতান্ত্রিক পার্টির সভাপতি শফিউল আলম প্রধান, ইসলামিক পার্টির সভাপতি আবদুল মবিন, ন্যাশনাল ডেমোক্র্যাটিক পার্টির সভাপতি খন্দকার গোলাম মূর্তজা, লেবার পার্টির সভাপতি ডা. মুস্তাফিজুর রহমান ইরানসহ ১৮ দলীয় জোটের নেতারা বিরোধীদলীয় নেতার সঙ্গে কুশল বিনিময় করেন।
ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সাবেক ভাইস চ্যান্সেলর অধ্যাপক ড. এমাজউদ্দীন আহমেদ, অধ্যাপক মনিরুজ্জামান মিঞা, ড. তালুকদার মনিরুজ্জামান, অধ্যাপক আ.ন.ম. ইউসুফ হায়দার, ড. মাহবুবউল্লাহ, অধ্যাপক সুকোমল বড়ুয়া, সাবেক মন্ত্রিপরিষদ সচিব আবদুল হালিম, সাবেক সচিব ইসমাইল জবিউল্লাহ, এম মনিরুজ্জামান, শরফুল আলম, ইলিয়াস আহমেদ, এটিএম ফজলুল করিম, ফেডারেল সাংবাদিক ইউনিয়নের মহাসচিব শওকত মাহমুদ, সম্মিলিত পেশাজীবী পরিষদের সদস্য সচিব অধ্যাপক ডা. এজেডএম জাহিদ হোসেন, সাংবাদিক মাহফুজউল্লাহ, কবি মাহমুদ শফিক, কবি আবদুল হাই শিকদার, চলচ্চিত্রকার চাষী নজরুল ইসলামসহ শিক্ষক, শিল্পী, সাহিত্যিক, সাবেক সচিব, দলীয় সংসদ সদস্য, কেন্দ্রীয় নেতা ও পেশাজীবী নেতারা খালেদা জিয়ার সঙ্গে ঈদের শুভেচ্ছা বিনিময় করেন। এরপর শিশু-কিশোর, সর্বস্তরের মানুষ ও দলীয় নেতাকর্মীরা লাইনে দাঁড়িয়ে তার সঙ্গে ঈদের শুভেচ্ছা বিনিময় করেন।
খালেদা জিয়া কূটনীতিকসহ অভ্যাগতদের সেমাই, জরদা, মিষ্টি ও ফল দিয়ে আপ্যায়ন করেন। এ সময় দলের ভারপ্রাপ্ত মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর, স্থায়ী কমিটির সদস্য ড. আর এ গণি, এম কে আনোয়ার, ব্রিগেডিয়ার জেনারেল (অব.) আ স ম হান্নান শাহ, ব্যারিস্টার রফিকুল ইসলাম মিয়া, মির্জা আব্বাস, গয়েশ্বর চন্দ্র রায়, নজরুল ইসলাম খান, সহ-সভাপতি সাদেক হোসেন খোকা, চেয়ারপার্সনের উপদেষ্টা রিয়াজ রহমান, বিরোধী দলীয় নেতার প্রেস সচিব মারুফ কামাল খান প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন। এছাড়াও উপস্থিত ছিলেন সহ-সভাপতি চৌধুরী কামাল ইবনে ইউসুফ, রাজিয়া ফয়েজ, সেলিমা রহমান, চেয়ারপার্সনের উপদেষ্টা ড. ওসমান ফারুক, আবদুল মান্নান, মহানগর সদস্য সচিব আবদুস সালাম, যুবদলের সাধারণ সম্পাদক সাইফুল আলম নীরব, ড্যাব সভাপতি অধ্যাপক একেএম আজিজুল হক, স্বেচ্ছাসেবক দলের সভাপতি হাবিব-উন নবী খান সোহেল, মহিলা দল সভাপতি নুরে আরা সাফা ও সাধারণ সম্পাদক শিরিন সুলতানা, ছাত্রদল সভাপতি আবদুল কাদের ভুঁইয়া জুয়েল প্রমুখ।
বিদেশে চিকিত্সাধীন দুই ছেলে তারেক রহমান ও আরাফাত রহমান কোকোর সঙ্গে ঈদের শুভেচ্ছা বিনিময় হয়েছে কিনা জানতে চাইলে খালেদা জিয়া বলেন, আমি এখনও টেলিফোন করিনি। তাদের সঙ্গে আজই কথা বলব।
ইস্কাটনে ঈদের শুভেচ্ছা বিনিময় শেষে বেলা সোয়া ২টায় শেরেবাংলা নগরে খালেদা জিয়া দলের প্রতিষ্ঠাতা সাবেক রাষ্ট্রপতি শহীদ জিয়াউর রহমানের মাজারে ফাতেহা পাঠ ও পুষ্পার্ঘ্য অর্পণ করেন। এ সময় দলের ভারপ্রাপ্ত মহাসচিবসহ সিনিয়র নেতারা উপস্থিত ছিলেন।

সংবাদটি আপনার পরিচিতদের সাথে শেয়ার করুন...

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.

More News Of This Category
©2011 - 2020 সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত | TekNafNews.com
Developed by WebArt IT