হটলাইন

01787-652629

E-mail: teknafnews@gmail.com

সর্বশেষ সংবাদ

প্রচ্ছদবিচিত্র

ইভটিজিংয়ের অভিযোগে পুলিশ সদস্যকে জুতাপেটা তরুণীদের

টেকনাফ নিউজ ডেস্ক ::  মদ্যপ’ অবস্থায় ইভটিজিং করার অভিযোগে রাজশাহীতে এক পুলিশ সদস্যকে জুতাপেটা করেছেন কয়েকজন তরুণী। গতকাল বৃহস্পতিবার রাত ১০টার দিকে রাজশাহী মহানগরীর লক্ষ্মীপুর কাঁচাবাজার এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। ঘটনার পর নগরীর রাজপাড়া থানা পুলিশ তাকে আটক করে নিয়ে যায়।

জানা গেছে, অভিযুক্ত পুলিশ কনস্টেবলের নাম সাব্বির হোসেন (৩০)।

তিনি রাজশাহী মহানগর পুলিশের (আরএমপি) পবা থানায় কর্মরত। পবা থানা জানায়, রাতেই তাকে এই থানা থেকে প্রত্যাহার দেখানো হয়েছে। বর্তমানে তাকে আরএমপির পুলিশ লাইনে রাখা হয়েছে।

তার বিরুদ্ধে বিভাগীয় ব্যবস্থা নিচ্ছে আরএমপি।

জানা গেছে, সাব্বির হোসেন লক্ষ্মীপুর কাঁচাবাজার এলাকায় একটি বাড়িতে পরিবার নিয়ে ভাড়া থাকেন। তিনি প্রায় প্রতিদিনই কাঁচাবাজারে বসে নারীদের ইভটিজিং করতেন। বৃহস্পতিবার রাতেও তিনি ‘মদ্যপ’ অবস্থায় এলাকার এক তরুণীকে কটূক্তি করেন। কিন্তু এ দিন ঐ তরুণী চলে না গিয়ে পায়ের জুতা খুলে কনস্টেবল সাব্বিরকে পেটাতে শুরু করেন।

এ সময় তার সঙ্গে আরও কয়েকজন তরুণী যোগ দেন। এগিয়ে আসেন এলাকার লোকজনও। তখন পালিয়ে গিয়ে বাসায় ঢুকে যান সাব্বির। কিন্তু এলাকার লোকজন বাড়িটি ঘিরে রাখেন। এ নিয়ে উত্তেজনা দেখা দেয়।

খবর পেয়ে রাজপাড়া থানা পুলিশের একটি দল কনস্টেবল সাব্বিরকে বাড়ি থেকে আটক করে নিয়ে যায়। এরপর পরিস্থিতি শান্ত হয়। সাব্বির মাদক সেবন করেছেন কি না তা জানতে পরীক্ষা করানোর জন্য আটকের পর রাত ১১টার দিকে সাব্বিরকে ললক্ষ্মীপুর এলাকায় ‘পপুলার ডায়াগনস্টিক সেন্টার’ নামের একটি রোগ নির্ণয় কেন্দ্রে নিয়ে যাওয়া হয়। কিন্তু ততক্ষণে রোগ নির্ণয় কেন্দ্রটি বন্ধ হয়ে যায়।

আরএমপি’র মুখপাত্র গোলাম রুহুল কুদ্দুস শুক্রবার সকালে বলেন, কনস্টেবল সাব্বিরের বিরুদ্ধে কেউ লিখিত অভিযোগ দেয়নি। কিন্তু যেহেতু একটা অভিযোগ উঠেছে তাই তাকে থানা থেকে রাতেই প্রত্যাহার করা হয়েছে। এরপর তাকে পুলিশ লাইনে রাখা হয়েছে। তার বিরুদ্ধে বিভাগীয় ব্যবস্থা নেওয়া হবে। তবে পরে আর মাদক গ্রহণ করেছেন এমন পরীক্ষা করানো হয়েছে কি না তা তিনি জানাতে পারেননি।

Leave a Response

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.