টেকনাফ নিউজ:
বিশ্বব্যাপী সংবাদ প্রবাহ... সবার আগে টেকনাফের সব সংবাদ পেতে টেকনাফ নিউজের সাথে থাকুন!
শিরোনাম :
শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান বন্ধ রাখা সবচেয়ে বড় ভুল : ডা. জাফরুল্লাহ মাদক কারবারি, স্বরাষ্ট্রমন্ত্রণালয়ের তালিকাভুক্ত সাংবাদিক আব্দুর রহমানের উদ্দেশ্যে কিছু কথা! ভারী বৃষ্টির সতর্কতা, ভূমিধসের শঙ্কা মোট জনসংখ্যার চেয়েও ১ কোটি বেশি জন্ম নিবন্ধন! বাড়তি নিবন্ধনকারীরা কারা?  বাহারছড়া শামলাপুর নয়াপাড়া গ্রামের “হাইসাওয়া” প্রকল্পের মাধ্যমে সচেতনতামূলক লিফলেট বিতরণ ও বার্তা প্রদান প্রধানমন্ত্রীর দেওয়া ঘর উদ্বোধন উপলক্ষে টেকনাফে ইউএনও’র প্রেস ব্রিফ্রিং টেকনাফের ফাহাদ অস্ট্রেলিয়ায় গ্র্যাজুয়েট ডিগ্রী সম্পন্ন করেছে নিখোঁজের ৮ দিন পর বাসায় ফিরলেন ত্ব-হা মিয়ানমারে পিডিএফ-সেনাবাহিনী ব্যাপক সংঘর্ষ ২শ’ বাড়ি সম্পূর্ণ ধ্বংস বিল গেটসের মেয়ের জামাই কে এই মুসলিম তরুণ নাসের

আপডেট : টেকনাফে নাফনদীতে নৌকা ডুবির ঘটনায় আটক -১: দুই দিনে লাশের সংখ্যা দাড়াঁল-২

Reporter Name
  • সংবাদ প্রকাশের সময় : শনিবার, ১৭ আগস্ট, ২০১৩
  • ১১৯ বার এই সংবাদটি পড়া হয়েছে

সাইফুল ইসলাম চৌধুরী,টেকনাফ ###টেকনাফে নাফনদীতে নৌকা ডুবির ঘটনায় নাজির হোছন নামে এক ব্যাক্তিকে আটক করে জিঞ্জাসাবাদ করছে পুলিশ। আজ ১৭ আগস্ট বিকালে টেকনাফ বন্দর এলাকা সংলগ্ন প্যারাবন থেকে  আরো একটি লাশ উদ্ধার করেছে। এছাড়া গতকালও একই স্থান থেকে এক বৃদ্ধের লাশ উদ্ধার করে।  এখন লাশের সংখ্যা দাঁড়াল -২। খোঁজ নিয়ে জানা যায়- গত ১ আগস্ট থেকে চালু হওয়া মিয়ানমারের পেরানপুর থেকে জাদিরঘাট চালিয়ে আসছে বাঁচা মিয়ার পুত্র ছৈয়দ হোছন, জামাল হোছন, আমির হোছন, মোনাফ কোম্পানীর পুত্র ওমর, ইসমাঈল, হামিদ হোছনের পুত্র আব্দুল শুক্কুর,উলা মিয়ার পুত্র আবুল হোছন, খুইল্যা মিয়ার পুত্র দিল মোহাম্মদ, তাজর মুল্লুকের পুত্র নুরুল ইসলাম, আব্দুল শুক্কুরের পুত্র আব্দুল মজিদ, জামালের পুত্র রমজান আলী, কালা মিয়ার পুত্র রশিদ আহমদ, ছালেহ মাষ্টারের পুত্র রেজাঊল করিম, আহমদ হোছনের পুত্র মোহাম্মদ হোছন, সোলতান আহমদের পুত্র ইলিয়াছ, তৈয়ম গোলালের পুত্র আলী হোছন, নাজির আহমদের পুত্র খাইরুল বশর, কালা মিয়ার পুত্র মোঃ জুবাইর, বার্মাইয়া ওসমানসহ ৩০জনের সিন্ডিকেট এবং মিয়ানমারের প্রাংপুরের কবির আহমদের পুত্র রহমত উল্লাহ মিলে এই ঘাটটি চালু করে। ১৫ আগষ্ট রাত সাড়ে ৮টায় ৯জন রোহিঙ্গা নারী-পুরুষ ও শিশু এবং চোরাই পণ্য নিয়ে যাওয়ার সময় লাল দ্বীপের কাছে দূঘর্টনার কবলে পড়ে নৌকা ডুবির ঘটনা ঘটে। ১৬আগষ্ট বিকালে কেয়ারী ঘাট এলাকা হতে ১রোহিঙ্গার লাশ উদ্ধার করে থানায় নিয়ে আসে। অন্যরা এখনো পর্যন্ত নিখোঁজ রয়েছে। তবে টেকনাফ থানা পুলিশের এসআই আব্দুল মোনাফ ১৭আগষ্ট দুপুরে জাদিমোরা এলাকা হতে সন্দেহভাজন আদম পাচারকারী হিসেবে আটক করে জিজ্ঞাসাবাদ চালাচ্ছে। পুলিশের তৎপরতা বৃদ্ধি পাওয়া এই আদম পাচারকারী সিন্ডিকেট সদস্যরা গাঁ ঢাকা দিতে শুরু করেছে। এ পর্যন্ত জাদিমুরা এলাকায়  ৫টি আদম ঘাট  চালু থাকলেও সংশ্লিস্ট কারো মাথা  ব্যাথা নেই। উল্লেখ্য, টেকনাফের আর্š—জাতিক জলসীমা নাফ নদীতে এপারÑওপার রোহিঙ্গা পারাপারের ৫টি আদম ঘাট বিদ্যমান থাকায় নিয়মিত আদম পারাপার হয়ে আসছে। সম্প্রতি নতুন চালু হওয়া ঘাটের যাত্রী বোঝাই নৌকা ডুবির ঘটনায় সর্বত্র তোলপাড়ের সৃষ্টি হলেও প্রকৃত আদম ব্যবসায়ীরা এখনও ধরাছোঁয়ার বাইরে থেকে অপতৎপরতা চালিয়ে যাচ্ছে। তবে টেকনাফ থানা পুলিশ সন্দেহভাজন ১জনকে আটক করে ব্যাপক জিজ্ঞাসাবাদ চালাচ্ছে।  ###############

সংবাদটি আপনার পরিচিতদের সাথে শেয়ার করুন...

Comments are closed.

More News Of This Category
©2011 - 2020 সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত | TekNafNews.com
Developed by WebArt IT