আগামী ২৭ জুলাই চন্দ্রগ্রহণ!

প্রকাশ: ২৪ জুলাই, ২০১৮ ১০:৩৯ : অপরাহ্ণ

চন্দ্রগ্রহণ

আগামী ২৭ জুলাই, গুরুপূর্ণিমার দিন চন্দ্রগ্রহণ হতে চলেছে। এবারের চন্দ্রগ্রহণ অনেক দিক দিয়ে বিশেষ হতে চলেছে।

সূর্য পুরোপুরি পৃথিবীর ছায়ায় চলে এলে পূর্ণগ্রাস চন্দ্রগ্রহণ হয়। আংশিক ঢাকলে, খন্ডগ্রাস চন্দ্রগ্রহণ হয়।

এখানে বলে দেওয়া দরকরা, আগামী শুক্রবার, শতাব্দীর দীর্ঘতম চন্দ্রগ্রহণ হতে চলেছে।
বিজ্ঞানীদের মতে, ১০৪ বছর পর এত বড় চন্দ্রগ্রহণ দেখা যাবে। এখানে বলে রাখা দরকার, বছরে ৩-৪ বার গ্রহণ হয়।

ওইদিন চাঁদের থেকে পৃথিবীর দূরত্ব হবে সর্বাধিক (অ্যাপোজি)। ফলত, পূর্ণমা চাঁদের আকারও ছোট হবে। আর এই দূরত্বের জন্যই পৃথিবীর ছায়া বেশিক্ষণ ধরে চাঁদের ওপর থাকবে। , চাঁদ যদি কাছে থাকত, তাহলে তা দ্রুত পৃথিবীর ছায়া থেকে বেরিয়ে পড়ত।

চন্দ্রগ্রহণ যেমন পূর্ণিমার দিন হয়, তেমনই সূর্যগ্রহণ হয় অমাবস্যায়।
চন্দ্রগ্রহণের সময় মঙ্গলগ্রহ পৃথিবীর সবচেয়ে কাছে হবে।

এবছর গোটা ভারতবর্ষ থেকে গ্রহণ দেখা যাবে। ভারত ছাড়াও, দক্ষিণ আমেরিকা, আফ্রিকা, মধ্যপ্রাচ্য ও মধ্য এশিয়া থেকেও দেখা যাবে এই বিরল মহাজাগতিক ঘটনা।

ওইদিন চাঁদের রং লালচে হবে। এই বিষয়টিকে সকলেই ‘ব্লাড মুন’ হিসেবে জানেন।
শুধুমাত্র পূর্ণগ্রাস চন্দ্রগ্রহণটি মোট এক ঘণ্টা ৪৩ মিনিট স্থায়ী হবে। এছাড়া, আংশিক চন্দ্রগ্রহণের স্থায়িত্বও হবে আরও এক-ঘণ্টা।

আগামী ২৭ জুলাই রাত ১১টা ২৪ মিনিট (বাংলাদেশ সময় ) শুরু হবে আংশিক গ্রহণ। পূর্ণগ্রহণ শুরু হবে রাত ১২:৩৩ নাগাদ। রাত ১টা ২২ মিনিটে চাঁদ প্রায় অন্ধকারময় হবে। এটা চলবে রাত ০২:১৫ নাগাদ। এরপর, ফের আংশিক চন্দ্রগ্রহণ থাকবে ভোররাত ৩টে ২০ মিনিট পর্যন্ত।

✔✔ আবহাওয়া ভালো থাকলে দেশের সকল স্থান থেকে গ্রহনটি শুরু থেকে শেষ পর্যন্ত পুরোটাই দেখাযাবে।


সর্বশেষ সংবাদ